দিনাজপুরের হিলি সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করায় রাজেশ চৌধুরী (২৩) নামের এক ভারতীয় নাগরিক এবং অবৈধভাবে সীমান্ত পারাপারের অভিযোগে চার বাংলাদেশিকে আটক করেছেন বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সদস্যরা। এ ছাড়া ভারত থেকে ফেনসিডিল আনার সময় এক দম্পতিকে আটক করা হয়।
গতকাল শনিবার ভোর থেকে দুপুর পর্যন্ত সীমান্তে অভিযান চালিয়ে বিজিবি তাঁদের আটক করে পুলিশের কাছে সোপর্দ করে। রাজেশ চৌধুরীর বাড়ি ভারতের মালদা জেলা সদরের সাহাপুর গ্রামে। আটক বাংলাদেশিরা হলেন হাকিমপুর উপজেলার ফকিরপাড়া গ্রামের আবদুর রশীদ (২৭), রশীদা বেগম (৩০), নওগাঁর নিয়ামতপুর থানার পুংগি গ্রামের পার্বতী রানী (৪০) ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদরের উজরাপুর গ্রামের শংকর রায় চৌধুরী (৪৫)।
ফেনসিডিলসহ আটক দম্পতি হলেন হিলি পৌর শহরের জাহিদুল ইসলাম (৩০) ও তাঁর স্ত্রী শাহীনুর বেগম।
বিজিবির হিলি চেকপোস্ট ক্যাম্প কমান্ডার নায়েক সুবেদার আবদুল জব্বার বলেন, গতকাল ভোররাতে কামালগেট নামক এলাকা দিয়ে ওই দম্পতি ভারত থেকে দেশে প্রবেশ করলে বিজিবির সদস্যরা তাঁদের আটক করেন। এ সময় তাঁদের শরীর তল্লাশি করে ১০ বোতল ফেনসিডিল পাওয়া যায়। একই সময় সীমান্তের ফকিরপাড়া এলাকা দিয়ে আবদুর রশীদ ও রশীদা বেগম ভারতে যাওয়ার চেষ্টা করলে তাঁদের আটক করা হয়।
আবদুল জব্বার আরও বলেন, আটক শংকর রায় চৌধুরী ও পার্বতী রানী কিছুদিন আগে অবৈধভাবে ভারত যান। গতকাল দুপুরে ভারত থেকে দেশে প্রবেশ করলে বিজিবি সদস্যরা তাঁদের আটক করেন। একই সময় অনুপ্রবেশের সময় ভারতীয় নাগরিক রাজেশ চৌধুরীকে আটক করা হয়।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0