default-image

ঢাকার সাভারে অস্ত্র ও ইয়াবাসহ প্লাবন খান নামে ছাত্রলীগের এক নেতাকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। গতকাল বুধবার রাতে পৌর এলাকার দক্ষিণ পাড়ায় ব্যক্তিগত কার্যালয় থেকে তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

প্লাবন খান দক্ষিণ পাড়ার বাসিন্দা এবং সাভার সরকারি কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। তবে আজ বৃহস্পতিবার তাঁকে সংগঠন থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।

র‌্যাব-৪ জানায়, প্লাবন খান দীর্ঘদিন ধরে মাদক ব্যবসা করে আসছিলেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব সদস্যরা গতকাল দিবাগত গভীর রাতে প্লাবন খানের ব্যক্তিগত কার্যালয়ে অভিযান চালায়। এ সময় একটি শুটার গান ও ৫০০টি ইয়াবা বড়িসহ তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি ওই কার্যালয়ে রাত্রিযাপন করে মাদক বিক্রি করতেন।

র‌্যাব-৪-এর অধিনায়ক অতিরিক্ত উপমহা পুলিশ পরিদর্শক মোহাম্মদ মোজাম্মেল হক বলেন, প্লাবন খানের বিরুদ্ধে মাদক ব্যবসার অভিযোগে সাভার থানায় এর আগেও মামলা হয়েছে। র‌্যাবের পক্ষ থেকে অস্ত্র ও মাদক আইনে আরও দুইটি মামলা দেওয়ার প্রস্তুতি চলছে। তিনি বলেন, প্লাবন খান সাভারের ইয়াবা ডিলারদের একজন। তিনি সাভারের বেশ কয়েকজন মাদক ব্যবসায়ীকে ইয়াবা সরবরাহ করে আসছিলেন। তাঁদের বিষয়ে তথ্য পাওয়া গেছে।

সংগঠন থেকে অব্যাহতি

অস্ত্র ও ইয়াবাসহ গ্রেপ্তার হওয়ায় প্লাবন খানকে সাভার সরকারি কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদকের পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। ঢাকা জেলা উত্তর ছাত্রলীগ আজ বৃহস্পতিবার বিজ্ঞপ্তি দিয়ে তাঁকে অব্যাহতির বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।
ঢাকা জেলা উত্তর ছাত্রলীগের সভাপতি সাইদুল ইসলাম বলেন, দলে কোনো মাদক ব্যবসায়ী ও সন্ত্রাসীর ঠাঁই নেই। প্লাবন খানকে আপাতত সংগঠন থেকে অব্যাহতি দিয়ে দল থেকে বহিষ্কারের জন্য কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের কাছে সুপারিশ পাঠানো হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0