সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া-লাহিড়ী মোহনপুর আঞ্চলিক সড়কের ভদ্রকোল গ্রামের কাছ থেকে সরকারি ১৪টি খেজুরগাছ অবৈধভাবে কেটে নেওয়া হয়েছে।

এ ব্যাপারে উল্লাপাড়ার সহকারী কমিশনার (ভূমি) আকরাম আলী জানান, স্থানীয় বাসিন্দাদের কাছ থেকে অভিযোগ পাওয়ার পর সরেজমিনে তদন্ত করে ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে। ক্রেতা ও বিক্রেতাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য একটি প্রতিবেদন তৈরি করে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) কাছে দাখিল করা হয়েছে।

ইউএনও শামীম আহমেদ জানান, গাছগুলো জেলা পরিষদের আওতাভুক্ত। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য বিস্তারিত উল্লেখ করে জেলা পরিষদে একটি পত্র পাঠানো হয়েছে।

উপজেলা প্রশাসন ও স্থানীয় বাসিন্দা সূত্রে জানা গেছে, সিরাজগঞ্জ জেলা পরিষদের আওতাধীন উল্লাপাড়া-লাহিড়ী মোহনপুর আঞ্চলিক সড়কের ভদ্রকোল গ্রামের কাছে প্রায় ৫০ বছর আগে খেজুরগাছ লাগানো হয়। গাছগুলো অনেক বড়ও হয়েছিল। এক সপ্তাহ ধরে ওই গ্রামের আবদুল হামিদ তাঁর লোকবল নিয়ে গাছগুলো কাটা শুরু করেন। এলাকাবাসী বাধা দিলে দিনের বেলায় না কেটে রাতে কাটা হয়। গতকাল সোমবার পর্যন্ত ১৪টি গাছ কেটে নেওয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে আবদুল হামিদ বলেন, তিনি গ্রামের আফজাল হোসেন, আতোয়ার হোসেন ও আনোয়ার হোসেনের কাছ থেকে কেনার পর গাছগুলো কাটা শুরু করেন। তিনি এসব গাছ স্থানীয় ইটভাটায় বিক্রি করেছেন।

এ ব্যাপারে আফজাল হোসেন, আতোয়ার হোসেন ও আনোয়ার হোসেন দাবি করেন, তাঁদের নিজের জমির পাশে হওয়ায় গাছগুলো তাঁরা বিক্রি করেছেন। এরপর আবদুল হামিদ কেটে নিয়ে যান। কাটার সময় এলাকার লোকজন বাধা দেওয়ায় তিনি সেগুলো রাতে কেটে নিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন
অপরাধ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন