জমি নিয়ে বিরোধ, প্রতিপক্ষের হামলায় একজন নিহত

বিজ্ঞাপন
default-image

পিরোজপুর সদর উপজেলার চলপুখরিয়া গ্রামে জমি নিয়ে বিরোধে প্রতিপক্ষের হামলায় মিজানুর রহমান শেখ (৪৮) নামের এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। আজ বৃহস্পতিবার রাতে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান। নিহত মিজানুর রহমান উপজেলার চলপুখরিয়া গ্রামের মৃত আবদুল জলিল শেখের ছেলে।

এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে সদর উপজেলার কলাখালী ইউনিয়ন পরিষদের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য আবদুর রাজ্জাক ব্যাপারীকে (৫৫) আটক করেছে পুলিশ।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, মিজানুর রহমান শেখের সঙ্গে একই গ্রামের ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য আবদুর রাজ্জাক ব্যাপারীর জমি নিয়ে বিরোধ রয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেল চারটার দিকে ওই জমি চাষাবাদ নিয়ে দুই পক্ষের লোকজনের মধ্যে কথা-কাটাকাটি হয়। এ সময় প্রতিপক্ষের লোকজন ধারালো অস্ত্র দিয়ে মিজানুর রহমান শেখকে কুপিয়ে জখম করেন। স্থানীয় লোকজন তাঁকে উদ্ধার করে পিরোজপুর সদর হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাঁকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে রাত সাড়ে আটটার দিকে মিজানুর রহমান শেখ মারা যান।

পিরোজপুর সদর হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) নিজাম উদ্দিন বলেন, মিজানুর রহমান শেখের শরীরে ধারালো অস্ত্রের জখম ছিল। তাঁর শারীরিক অবস্থা গুরুতর হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

পিরোজপুর সদর হাসপাতালের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. নূরুল ইসলাম বলেন, এ ঘটনায় জড়িত একজনকে আটক করা হয়েছে। থানায় এ ঘটনায় হত্যা মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন