মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলার স্কুলছাত্র ইয়াছিন মিয়া (১৪) প্রায় তিন সপ্তাহ ধরে নিখোঁজ। সে উপজেলার জায়ফরনগর ইউনিয়নের জাঙ্গিরাই গ্রামের বাসিন্দা দিনমজুর মো. এলমুদ্দিনের ছেলে ও জুড়ী মডেল উচ্চবিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির ছাত্র। এ ব্যাপারে গত শনিবার সন্ধ্যায় জুড়ী থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়েছে।
জিডি ও স্বজনদের সূত্রে জানা গেছে, এলমুদ্দিন উপজেলা খাদ্যগুদামের শ্রমিক। গত ৬ ডিসেম্বর প্রতিবেশী এক ব্যক্তির ছাগল তাঁর সবজিখেতে ঢুকে পড়ে। এ নিয়ে তাঁর ছেলে ইয়াছিনের সঙ্গে প্রতিবেশীর ঝগড়া হয়। এ ব্যাপারে ওই প্রতিবেশী এলমুদ্দিনের কাছে নালিশ করেন। কাজ শেষে ওই দিন সন্ধ্যায় বাড়ি ফিরে এলমুদ্দিন ইয়াছিনকে বকাঝকা করেন। পরদিন সকালে উপজেলা সদরে যাওয়ার কথা বলে বিদ্যালয়ের পোশাক পরে ইয়াছিন বাড়ি থেকে বের হয়। এরপর আর সে ফেরেনি। বিদ্যালয়ের বার্ষিক সমাপনী পরীক্ষায় সে অংশগ্রহণ করতে পারেনি। আত্মীয়স্বজনের বাড়িসহ বিভিন্ন জায়গায় খোঁজাখুঁজি করেও তার সন্ধান মেলেনি।
এলমুদ্দিন জানান, ছেলেকে হারিয়ে তিনি ও তাঁর স্ত্রী মানসিকভাবে ভেঙে পড়েন। তাই জিডি করতে দেরি হয়েছে।
জুড়ী থানার উপপরিদর্শক (এসআই) নূরুল হক হাওলাদার গতকাল রোববার জানান, ইয়াছিনের সন্ধানে বিভিন্নভাবে চেষ্টা চলছে।

বিজ্ঞাপন
অপরাধ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন