কক্সবাজারের মহেশখালী উপজেলার আদিনাথ মেলায় গত সোমবার রাতে জুয়া খেলার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে দুই পক্ষের সংঘর্ষে পাঁচজন আহত হয়েছেন। এঁদের মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।
প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রাত আটটার দিকে আদিনাথ মেলার দক্ষিণ পাশে জুয়ার আসর বসে। খেলার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে পৌর এলাকা ও ছোট মহেশখালী ইউনিয়নের লোকজনের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। এ সময় ছুরিকাঘাতে পৌর এলাকার পুটিবিলার বাসিন্দা খাইরুল আমিন (৩০) আহত হন। তাঁকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
আদিনাথ মেলা পূজা উদ্যাপন কমিটির সভাপতি পূর্ণ চন্দ্র দে বলেন, মেলার ভেতরে জুয়ার আসর বসানো হয়নি। মেলার দক্ষিণ পাশে বিঞ্চিপাড়ায় জুয়া খেলা নিয়ন্ত্রণ নিয়ে এ সংর্ঘষ হয়। এতে মেলার কোনো ক্ষতি হয়নি।
সংঘর্ষের পর পুলিশ অভিযান চালিয়ে জুয়া খেলার আসর গুঁড়িয়ে দেয় ও পাঁচ জুয়াড়িকে আটক করে। তাঁদের গতকাল মঙ্গলবার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) কার্যালয়ে হাজির করা হলে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আনোয়ারুল নাসের ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে তাঁদের বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দেন। এর মধ্যে নাজমুল হাসান (২৪), মো. এমরান (২৮), পরমান উল্লাহ (৩০) ও আবদুল মজিদকে (৩২) ১৫ দিন করে এবং মোহাম্মদ মনিরকে (২০) এক মাসের কারাদণ্ডাদেশ দেওয়া হয়।
মহেশখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আলমগীর হোসেন জানান, মেলায় বিশৃঙ্খলা এড়াতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
অপরাধ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন