বগুড়ার কাহালু উপজেলার দেহড় গ্রামের একটি পুকুর থেকে গতকাল বৃহস্পতিবার বিপুল (১৮) নামের এক তরুণের গলাকাটা লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তিনি ওই গ্রামের মৃত মকবুল হোসেনের ছেলে।
পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, বিপুল কাঠমিস্ত্রির কাজ করতেন। তিনি অনেক দিন ধরে একই গ্রামে মামার বাড়ি থাকতেন। গত বুধবার রাত সাড়ে নয়টার দিকে তিনি মামার বাড়ি থেকে বের হন। রাতে বাড়ি না ফেরায় তাঁকে বিভিন্ন জায়গায় খোঁজ করে পরিবারের লোকজন। গতকাল সকালে গ্রামের লোকজন স্থানীয় ছোটগাড়ি পুকুরে তাঁর লাশ ভেসে থাকতে দেখে। পরে থানায় খবর দিলে পুলিশ এসে লাশটি উদ্ধার করে।
বিপুলের মামা নিলু জানান, তাঁর সঙ্গে কারও কোনো বিরোধ ছিল না।
কাহালু থানার উপপরিদর্শক (এসআই) তোজাম্মেল হক জানান, নিহত তরুণের শরীরের বিভিন্ন স্থানে জখম রয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে একটি ধারালো চাকু উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় বিপুলের মামা নিলু বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিদের আসামি করে গতকাল থানায় মামলা করেছেন।

বিজ্ঞাপন
অপরাধ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন