default-image

নাটোরের বড়াইগ্রামে অজ্ঞান পার্টির কবলে পড়ে হাসিনুর রহমান ছকির (৬৫) নামে আওয়ামী লীগের এক নেতার মৃত্যু হয়েছে। গতকাল সোমবার রাতে উপজেলার বনপাড়ার পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাঁর মৃত্যু হয়। আজ মঙ্গলবার সকালে ময়নাতদন্তের জন্য তাঁর লাশ রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়।

মারা যাওয়া হাসিনুর স্থানীয় ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ছিলেন।

বড়াইগ্রাম থানা ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, হাসিনুর রহমান গতকাল সকালে জমিজমাসংক্রান্ত কিছু কাগজপত্র তুলতে রাজশাহী শহরে যান। কাজ শেষে বাসে চড়ে বাড়ি ফেরার পথে তিনি অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে পড়েন। অজ্ঞান পার্টির সদস্যরা তাঁর কাছে থাকা টাকা ও মোবাইল সেট লুট করে নিয়ে তাঁকে রাজশাহীর পুঠিয়া এলাকায় ফেলে যায়। পরে স্থানীয় লোকজন তাঁকে উদ্ধার করে পুঠিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। সেখানে রাতে তাঁর মৃত্যু হয়। আজ মঙ্গলবার সকালে ময়নাতদন্তের জন্য তাঁর লাশ রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়। এ ব্যাপারে পুঠিয়া থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

চান্দাই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনিছুর রহমান এ খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেন। এ ব্যাপারে পুঠিয়া থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে তিনি জানান।

বিজ্ঞাপন
অপরাধ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন