পঞ্চগড় সীমান্তে বাংলাদেশি যুবকের লাশ উদ্ধার

বিজ্ঞাপন
default-image

পঞ্চগড়ের হাঁড়িভাসা সীমান্ত এলাকা থেকে হাসান আলী (২৫) নামের এক বাংলাদেশি যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ মঙ্গলবার দুপুরে সদর উপজেলার ভারতীয় সীমান্তঘেঁষা মোমিনপাড়া এলাকা থেকে লাশটি উদ্ধার করে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ও পুলিশ।

নিহত হাসান আলী হাঁড়িভাসা ইউনিয়নের খালপাড়া এলাকার তবিবর রহমানের ছেলে। পেশায় তিনি একজন গরু ব্যবসায়ী বলে জানা গেছে।

পুলিশ, বিজিবি ও স্থানীয় লোকজন জানান, আজ ভোরে হাসান আলীর লাশ পড়ে থাকতে দেখে বিজিবি ও পুলিশকে খবর দেন স্থানীয়রা। খবর পেয়ে নীলফামারী ৫৬ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মামুনুল হক ও পঞ্চগড়ের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ইউসুফ আলী ঘটনাস্থলে যান। পরে তাঁদের উপস্থিতিতেই লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায় পুলিশ।

বাংলাদেশ সীমান্ত অতিক্রম করে ভারতে যাওয়ার সময় ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) গুলিতে ওই যুবক নিহত হয়েছেন বলে ধারণা করছেন স্থানীয় লোকজন। তবে ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন না পাওয়া পর্যন্ত মৃত্যুর সঠিক কারণ বলা যাচ্ছে না বলে জানিয়েছে বিজিবি ও পুলিশ।

পঞ্চগড়ের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ইউসুফ আলী বলেন, লাশটি সীমান্ত এলাকার বাংলাদেশ অংশে পাওয়া গেছে। লাশের ডান কানের কাছে আঘাতের চিহ্ন আছে। রক্ত জমাট ছিল। তবে সেটি গুলির চিহ্ন কি না, তা নিশ্চিত নয়। এ ছাড়া প্রাথমিক সুরতহালে লাশের অন্য কোনো স্থানে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলেই মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে।

নীলফামারী ৫৬ বিবিজি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মামুনুল হক বলেন, লাশটি সীমান্তের বাংলাদেশ অংশে পড়ে ছিল। মাথায় যেখানে রক্ত জমাট ছিল, সেখানে গুলির আঘাত আছে কি না, তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। বিষয়টি তদন্ত করা হচ্ছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন