বিদেশে লোক পাঠানোর কথা বলে প্রতারণা, ৬ জনের কারাদণ্ড

বিজ্ঞাপন
default-image

কানাডা ও ফিজিতে লোক পাঠানোর কথা বলে তাঁদের কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগে মঙ্গলবার একটি প্রতিষ্ঠানের ছয়জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দিয়েছেন র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত। সাজাপ্রাপ্তদের মধ্যে আছেন প্রতিষ্ঠানটির মালিক তোফাজ্জল হোসেন। অন্যরা হলেন প্রতিষ্ঠানটির কর্মকর্তা ও কর্মচারী জুই আক্তার, সানজিদা খানম, সাদিয়া আক্তার, নাঈমা জুম ও স্বপ্না আক্তার।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

র‌্যাব সূত্র জানায়, মঙ্গলবার সন্ধ্যা ছয়টার দিকে র‌্যাব-৩ এর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসুর নেতৃত্বে র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত বনানীর ৪ নম্বর সড়কের ড্রিম ভিসা নামের একটি রিক্রুটিং এজেন্সিতে অভিযান চালান। রাত ১১ টা পর্যন্ত চলা অভিযানের সময় ভ্রাম্যমাণ আদালত দেখতে পান প্রতিষ্ঠানের মালিক তোফাজ্জলের বিদেশে পাঠানোর বৈধ কোনো লাইসেন্স নেই। কিন্তু তারপরও তিনি ওয়েবসাইটে ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিজ্ঞাপন দিতেন। এরপর যারা অফিসে আসতেন তাদের প্রলোভন দেখিয়ে পাসপোর্ট হাতিয়ে নিতেন। পরে ভুক্তভোগীরা আর তাদের খুঁজে পেতেন না। অভিযানের সময় ওই প্রতিষ্ঠান থেকে ৩২ টি পাসপোর্ট, ভুয়া চুক্তিপত্র, ফিজিতে পাঠানোর ভুয়া ডিমান্ড লেটার জব্দ করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসু মঙ্গলবার রাতে প্রথম আলোকে বলেন, প্রতারণায় দায় স্বীকার করায় প্রতিষ্ঠানটির মালিক তোফাজ্জলকে ছয় মাসের কারাদণ্ড দেন। এ ছাড়া অন্যদের এক মাস করে বিনাশ্রম কারাদণ্ড, ১০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে সাত দিন করে কারাদণ্ড দেওয়া হয়। প্রতিষ্ঠানটি সিলগালা করে দেওয়া হয়েছে। তিনি বলেন, সাজা প্রাপ্ত তোফাজ্জলকে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে, অন্যদের কাশিমপুর নারী কারাগারে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বিদেশে তরুণী পাচারের দায়ে দুজন গ্রেপ্তার
মঙ্গলবার বিকেলে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমারের নেতৃত্বে একই ভ্রাম্যমাণ আদালত এক তরুণীকে সৌদিতে পাচার করার দায়ে বনানীর ১০ নম্বর সড়কে ফাতেমা ওভারসিজ নামের একটি প্রতিষ্ঠানের মালিক কবির হোসেন ও সোহাগ হোসেনকে গ্রেপ্তার করেন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন