default-image

রংপুরে নিখোঁজ আইনজীবী ও আওয়ামী লীগ নেতা রথীশ চন্দ্র ভৌমিকের লাশ উদ্ধার করেছে র‍্যাব।

নিখোঁজ হওয়ার পঞ্চম দিন গতকাল মঙ্গলবার দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে রথীশের লাশটি উদ্ধার করা হয়। র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়েনর (র‍্যাব-১৩) অধিনায়ক মেজর আরমিন রাব্বী এই তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

রংপুর শহরের তাজহাট বাবুপাড়ায় রথীশের বাড়ি থেকে আধা কিলোমিটার দূরে তাজহাট মোল্লাপাড়া এলাকা থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। নির্মাণাধীন একটি বাড়িতে তাঁর লাশটি মাটিচাপা দেওয়া ছিল।

উদ্ধারের পর রথীশের ছোট ভাই সুশান্ত ভৌমিক লাশটি শনাক্ত করেন।

র‍্যাব জানায়, রথীশের স্ত্রী স্নিগ্ধা সরকার ও তাঁর দুই সহকর্মীকে আটকের পর জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। গতকাল রাত সাড়ে আটটার দিকে অভিযানে নামে র‍্যাব। আটক করা ব্যক্তিদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে লাশের সন্ধান মেলে।

গত শুক্রবার সকালে তাজহাট বাবুপাড়ার নিজ বাড়ি থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হন রথীশ। তাঁকে অক্ষত অবস্থায় উদ্ধারের দাবিতে দেশের বিভিন্ন স্থানে কর্মসূচি পালিত হয়। এ ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপও কামনা করা হয়।

রথীশ নিখোঁজ হওয়ার ঘটনায় বেশ কয়েকজনকে আটক করা হয়। তাঁদের মধ্যে তাজহাট উচ্চবিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক কামরুল ইসলাম ও মতিয়ার রহমান আছেন। তাজহাট উচ্চবিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি ছিলেন রথীশ। তাঁর স্ত্রী এই বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক।

গতকাল বিকেলে রথীশের বাড়ির পাশ থেকে একটি রক্তমাখা শার্ট উদ্ধার করে পুলিশ। এ নিয়ে কৌতূহল ছড়িয়ে পড়ে। পরে রথীশের ছোট ভাই সুশান্ত ভৌমিক বলেন, শার্টটি তাঁর ভাইয়ের নয়।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন