মৌলভীবাজারের রাজনগর উপজেলায় গত শুক্রবার দুই পক্ষের সংঘর্ষে ২৫ জন আহত হয়েছেন। এ সময় একটি ঘরে অগ্নিসংযোগ ও চারটি ঘর ভাঙচুর করা হয়।
এলাকার কয়েকজন বাসিন্দা ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত ৩১ জানুয়ারি উপজেলার পাঁচগাঁও ইউনিয়নের আমীরপুর গ্রামে ফুটবল খেলার মাঠে ওই গ্রামের ইয়ামিন (১৬) ও তাজেলের (১৭) মধ্যে বাগ্বিতণ্ডা হয়। এ নিয়ে তাদের আত্মীয়স্বজন সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। এতে উভয় পক্ষের ২০ জন আহত হন। এ ঘটনায় থানায় দুই পক্ষ থেকে দুটি মামলা করা হয়। ওই বিরোধের জের ধরে গত শুক্রবার সন্ধ্যায় দুই পক্ষ আবারও সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে।
এ সময় ইজাব মিয়া, বাবেল মিয়া, মিনহাজ মিয়া, বাচ্চু মিয়া, রিমন মিয়া, রুবেল মিয়া, শাওন মিয়া, ইয়াছিন মিয়া, সুয়েব মিয়া, পুরুষ আলী, আতাই মিয়া, শাহেদ মিয়া, বাবুল মিয়া, আছিল হক, খাইরুল, আবদুর রহমান, ছুলেমান মিয়া, রাশমিন মিয়া, মাখন মিয়াসহ উভয় পক্ষের অন্তত ২৫ জন আহত হন। তাঁদের মধ্যে গুরুতর আহত ইজাব মিয়া ও বাবেল মিয়াকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অন্যদের মৌলভীবাজার ২৫০ শয্যার হাসপাতাল ও রাজনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।
এদিকে সংঘর্ষের সময় একটি ঘরে আগুন দেওয়া হয়। এ ছাড়া চারটি ঘরও ভাঙচুর করা হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ ঘটনায় পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।
এ ব্যাপারে রাজনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শামছুদ্দোহা প্রথম আলোকে বলেন, ‘পরিস্থিতি শান্ত করতে আমরা অভিযান চালাচ্ছি।’

বিজ্ঞাপন
অপরাধ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন