default-image

সিরাজগঞ্জের রায়গঞ্জ উপজেলায় এক ব্যক্তি তাঁর স্ত্রীর মুখে অ্যাসিড ছুড়ে মেরে ঝলসে দিয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। উপজেলার সোনাখাড়া ইউনিয়নের মধুপুর গ্রামে আজ শুক্রবার সকালে এ ঘটনা ঘটে।

অ্যাসিড–সন্ত্রাসের শিকার ওই গৃহবধূর নাম শানু খাতুন (২১)। তিনি উপজেলার মধুপুর গ্রামের মোতালেব হোসেনের (২৫) স্ত্রী। গ্রামবাসী মোতালেবকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছেন। শানু খাতুন সিরাজগঞ্জ ২৫০ শয্যার বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, উপজেলার মধুপুর গ্রামের মোতালেব হোসেন (২৫) পারিবারিক কলহের জের ধরে আজ সকাল ৬টার দিকে তাঁর স্ত্রী শানু খাতুনের ওপর অ্যাসিড নিক্ষেপ করেন। এ সময় ওই গৃহবধূর চিৎকারে প্রতিবেশীরা এসে তাঁকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠান। অভিযুক্ত মোতালেব হোসেনকে আটক করে রাখেন এলাকাবাসী। পরে সকাল ৮টার দিকে পুলিশ এলে তাঁকে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়।

সোনাখাড়া ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান আবু হেনা মোস্তফা কামাল বলেন, গত দুই বছর আগে আবদুর রহমান তালুকদারের ছেলে মোতালেব হোসেনের সঙ্গে একই উপজেলার ধুবিল ইউনিয়নের আমশাড়া গ্রামের আশরাফ আলীর মেয়ে শানু খাতুনের বিয়ে হয়। মোতাবেল কৃষি ও কাঠের ব্যবসা করে জীবিকা নির্বাহ করেন। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে মোতালেবের সঙ্গে তাঁর স্ত্রী শানু খাতুনের ঝগড়া হয়। একপর্যায়ে স্ত্রীর শরীরে অ্যাসিড নিক্ষেপ করেন তিনি।

রায়গঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শহিদুল ইসলাম আজ দুপুরে প্রথম আলোকে বলেন, ঘটনার পরপরই ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে মোতালেবকে ধরে নিয়ে এসে থানা-হাজতে আটক রাখা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

সিরাজগঞ্জ ২৫০ শয্যার বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক আরেফিন সবুজ জানান, আহত শানু খাতুনের মুখমণ্ডল ঝলসে গেছে। হাসপাতালে ভর্তি করে তাঁকে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0