নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলায় রেল কর্মচারীর স্ত্রী তাহেরা বেগম হত্যার ঘটনায় মামলা হয়েছে। তাহেরার ভাই সাজেদুর রহমান বাদী হয়ে গত শনিবার রাতে সৈয়দপুর থানায় হত্যা মামলা করেছেন। পুলিশ হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত একটি বঁটি আলামত হিসেবে জব্দ করেছে।
পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত শনিবার বেলা দুইটায় সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানার ফাউন্ড্রি শপের (ঢালাই ঘর) সুপারভাইজার মাহবুবুর রহমানের স্ত্রী তাহেরা বেগমকে (৪৫) কয়েকজন দুর্বৃত্ত তাঁদের ফ্ল্যাটে ঢুকে কুপিয়ে চলে যায়। পরে স্বামী ও প্রতিবেশীরা উদ্ধার করে রেলওয়ে হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকেরা তাঁকে মৃত্যু ঘোষণা করেন। এ নিয়ে গতকাল রোববার প্রথম আলোতে ‘সৈয়দপুরে রেল কর্মচারীর স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা’ শিরোনামে প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়।
সৈয়দপুর থানার ওসি ইসমাইল হোসেন জানান, তাহেরার স্বামী, ছেলে ও মেয়ের সঙ্গে কথা হয়েছে। তাঁদের বক্তব্যের সূত্র ধরে হত্যাকাণ্ডেরে রহস্য উদ্ঘাটনের চেষ্টা চালাচ্ছে পুলিশ।
সৈয়দপুর সার্কেলের জ্যেষ্ঠ সহকারী পুলিশ সুপার সাজেদুর রহমান বলেন, ‘তাহেরা বেগম হত্যাকাণ্ডে পরিচিতজনেরা সম্পৃক্ত থাকতে পারে। দুর্বৃত্তরা বাইরে থেকে এলে তার আলামত অন্য রকম হতে পারত। নিহত গৃহবধূর পরিবারের ফ্ল্যাটে থাকা বঁটি হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত হওয়ায় রহস্য আরও বাড়িয়ে দিয়েছে।

বিজ্ঞাপন
অপরাধ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন