default-image

প্রতারণা করে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়া সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলা যুবলীগের সহসভাপতি ডি জে শাকিলকে (৩০) গ্রেপ্তারের পর এবার দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার জেলা যুবলীগের সভাপতি মো. রাশেদ ইউসুফ জুয়েল ও সাধারণ সম্পাদক মো. একরামুল হক স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে তাঁর বহিষ্কারের বিষয়টি জানানো হয়।

চিঠিতে বলা হয়েছে, সুসংগঠিত ও সুশৃঙ্খল সংগঠন বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের নীতি-নৈতিকতার পরিপন্থী কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের কেন্দ্রীয় নির্দেশনা মোতাবেক এবং তাড়াশ উপজেলা যুবলীগের কার্যনির্বাহী সংসদের সুপারিশের আলোকে তাড়াশ উপজেলা যুবলীগের সহসভাপতি ডি জে শাকিলকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

পুলিশ জানায়, বগুড়া জেলা শহরের মালতিনগর এলাকার আমানুল্লাহ তারেক (৩৩) নামের এক উদ্যোক্তার করা মামলায় গত বুধবার বিকেলে ডিবি পুলিশের সাইবার ইউনিট তাড়াশ সদর থেকে ডি জে শাকিলকে গ্রেপ্তার করে। এ সময় তাঁর দুই সহযোগীকেও গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তার হওয়া ডি জে শাকিল তাড়াশ উপজেলার বারুহাস ইউনিয়নের সদর গ্রামের বাসিন্দা। রিশান গ্রুপের চেয়ারম্যান হিসেবে তাড়াশ উপজেলা সদরে অফিস খুলে বিভিন্ন প্রতারণামূলক কাজের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন তিনি। উপজেলা যুবলীগের সহসভাপতি ছাড়াও মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক তিনি। একসময় কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সদস্য ছিলেন ডি জে শাকিল। তাঁর বাবা গোলাম মোস্তফা উপজেলা কৃষক লীগের সভাপতি।

আরও পড়ুন:

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0