default-image

নরসিংদীর শিবপুরে শনিবার ভোরে ঘুমন্ত অবস্থায় এক কিশোর খুন হয়েছে। ঘটনার পর থেকে তার ১৫ বছর বয়সী ছোট ভাই পলাতক। এলাকাবাসী বলছেন, একটি স্মার্টফোন হারানোর ঘটনায় বিজয়কে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে পালিয়েছে তার ছোট ভাই।

নিহত কিশোরের নাম মোহাম্মদ আলী বিজয় (১৭)। সে উপজেলার আয়ুবপুর ইউনিয়নের শাষপুরের শহীদ মিনার এলাকার আবদুর রশিদের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয় বাসিন্দা সূত্রে জানা গেছে, মোহাম্মদ আলী বিজয় বয়সে বড় হলেও কোনো আয়-উপার্জন করত না। তবে তার ছোট ভাই কাজকর্ম করে উপার্জন করে। সম্প্রতি সে নিজের জমানো টাকায় একটি স্মার্টফোন কেনে। তিন দিন আগে সেটি হারিয়ে যায়। নিজের বড় ভাই মোহাম্মদ আলী বিজয়কে সন্দেহ করতে শুরু করে। এ নিয়ে দুজনের মধ্যে ঝগড়া-বিবাদ চলে আসছিল। শনিবার ভোরে নিজ বাড়িতে ঘুমিয়ে ছিল মোহাম্মদ আলী বিজয়। এ অবস্থায় তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে ছোট ভাই। পরে তার চাচা আবদুল ফজলের মুঠোফোন নম্বরে ফোন দেয়। এ সময় সে বলে, বড় ভাইকে মেরে ফেলেছে।

আয়ুবপুর ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মুজিবুর রহমান সরকার বলেন, পরিবারটির বেশ কিছু জায়গা-জমি আছে। তবে আয়-উপার্জন ভালো নয়। ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক ধরে মাছ বহনকারী অনেক গাড়ি চলে। এসব গাড়িতে মোটরের মাধ্যমে তোলা পানি সরবরাহ করে পরিবারটি। এতে সামান্য যে আয় হয়, তা দিয়ে পরিবারটি চলে।

শিবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোল্লা আজিজুর রহমান শনিবার দুপুরে বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করেছে। ময়নাতদন্তের জন্য লাশ নরসিংদী সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। পরিবারের পক্ষ থেকে কোনো অভিযোগ এখনো তাঁরা পাননি।

বিজ্ঞাপন
অপরাধ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন