গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়া উপজেলার রামচন্দ্রপুর খেয়াঘাট এলাকায় মধুমতী নদী থেকে নিখোঁজের আট দিন পর বুধবার সকালে হাবিল সিকদার (১৯) নামের এক কলেজছাত্রের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।
উপজেলার রামচন্দ্রপুর খেয়াঘাট এলাকায় হাবিলের লাশ ভাসতে দেখে স্বজনদের খবর দেন স্থানীয় লোকজন। খবর পেয়ে স্বজনেরা হাবিল সিকদারের লাশ উদ্ধার করে বাড়ি নিয়ে যান।

বিজ্ঞাপন
default-image

হাবিল সিকদার গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার মানিকহার চরপাড়া গ্রামের মুসা সিকদারের ছেলে। তিনি গোপালগঞ্জ বঙ্গবন্ধু সরকারি কলেজের ইসলামের ইতিহাস বিভাগের অনার্স প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী ছিলেন।

হাবিলের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, ২ সেপ্টেম্বর সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ঝাকি জাল দিয়ে বাড়ির সামনে মধুপুর এলাকায় মধুমতী নদীতে মাছ শিকারে যান হাবিল সিকদার। এ সময় তিনি পানিতে পড়ে যান। পানিতে পড়ে যাওয়ার পর আর তিনি পানি থেকে না ওঠায় লোকজন তাঁকে খুঁজতে শুরু করেন। পরে খুলনা থেকে ডুবুরি দল এসেও তাঁকে খুঁজে পায়নি।

বিজ্ঞাপন

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে গোপালগঞ্জ সদর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মুরাদ হোসেন বলেন, ২ সেপ্টেম্বর সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ঝাকি জাল দিয়ে মাছ শিকারের সময় সদর উপজেলার মধুপুর এলাকায় মধুমতী নদীতে পড়ে হাবিল নিখোঁজ হন। বুধবার সকাল ১০টায় টুঙ্গিপাড়া উপজেলার রামচন্দ্রপুর খেয়াঘাট এলাকার মধুমতী নদী থেকে তাঁর লাশ উদ্ধার করা হয়।

মন্তব্য পড়ুন 0