বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

নিহত পুলিশ সদস্য মো. ফরহাদ হোসাইন (২০) দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ থানার নন্দনপুর গ্রামের মো. আবুল খায়েরের ছেলে। আহত পুলিশ সদস্য মো. ইউসুফ আলী (২২) বগুড়া জেলার গাবতলী থানার হাটখোলা গ্রামের মো. মুখলেসের ছেলে। তাঁরা দুজনই ঢাকার উত্তরার ৭ আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়নে কনস্টেবল হিসেবে কর্মরত।

আশুলিয়া থানার পুলিশ সূত্রে জানা যায়, বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টার দিকে ঢাকার উত্তরায় ডাক বিলির কাজ শেষে মো. ফরহাদ হোসাইন ও মো. ইউসুফ আলী মোটরসাইকেলে করে আশুলিয়ার রপ্তানি প্রক্রিয়াকরণ এলাকায় (ইপিজেড) তাঁদের অস্থায়ী ক্যাম্পে ফিরছিলেন। মোটরসাইকেলটি আশুলিয়ার জামগড়া ছয়তলা বিল্ডিংয়ের সরকার মার্কেটের সামনে পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি কাভার্ড ভ্যানের সঙ্গে ধাক্কা লাগে। এতে সড়কে ছিটকে পড়ে ঘটনাস্থলেই নিহত হন ফরহাদ।

খবর পেয়ে আশুলিয়া থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ফরহাদের লাশ থানায় নিয়ে আসে। ইউসুফকে উদ্ধার করে স্থানীয় একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
আশুলিয়া থানার উপপরিদর্শক ফরহাদ বিন করিম প্রথম আলোকে বলেন, দায়িত্ব পালন শেষে ক্যাম্পে ফেরার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় ফরহাদ ঘটনাস্থলেই নিহত হন। সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করা হয়েছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকার শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হবে। এ ঘটনায় আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন