হেলথ রিসোর্ট অ্যান্ড ডায়াগনস্টিকের অংশীদার করিম মোহাম্মদ প্রথম আলোকে বলেন, গত শুক্রবার সকালে তাঁদের হাসপাতালে ভর্তি হন এ্যানি বেগম। চিকিৎসক বেনজির হকের তত্ত্বাবধানে তিনি তিন সন্তানের জন্ম দেন। মা ও সন্তানেরা সবাই সুস্থ আছে। আগামীকাল তাঁদের হাসপাতাল থেকে রিলিজ দেওয়ার সম্ভাবনা আছে।

শিশুদের বাবা আশরাফুল ইসলাম বলেন, তাঁর স্ত্রী ১৭ জুন একসঙ্গে তিন শিশুর জন্ম দিয়েছেন। সবাই সুস্থ আছে। তিন সন্তানের জন্ম হওয়ায় তিনি খুবই খুশি। তিনি বলেন, হাসপাতালের চিকিৎসক শখ করে স্বপ্নের পদ্মা সেতুর সঙ্গে মিলিয়ে তিন সন্তানের নাম রেখেছেন। ছেলের নাম স্বপ্ন এবং দুই মেয়ের নাম পদ্মা ও সেতু। তিনি সন্তানদের জন্য সবার কাছে দোয়া কামনা করেছেন।

চিকিৎসক বেনজির হক প্রথম আলোকে বলেন, এ্যানি বেগম তাঁর কাছে নিয়মিত চিকিৎসা নেন। গত শুক্রবার সকালে সিজারের মাধ্যমে এ্যানির তিন সন্তানের জন্ম হয়। মা ও তিন সন্তান সবাই সুস্থ আছে। বাচ্চাদের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) রাখতে হয়নি। তিনি বলেন, যেহেতু চলতি মাসে স্বপ্নের সেতুর উদ্বোধন হবে, তাই এটিকে স্মরণীয় করে রাখতে শিশুদের নাম স্বপ্নের পদ্মা সেতুর সঙ্গে মিলিয়ে রেখেছেন স্বপ্ন, পদ্মা ও সেতু।

বেনজির হক আরও বলেন, ‘আমাদের দেশে অনেক উন্নতি হচ্ছে, এগিয়ে যাচ্ছে। বাংলাদেশের একটি অংশ দুর্বল ছিল। এখন পদ্মা সেতুর কারণে সেই অংশও এগিয়ে যাবে। নাম রাখার বিষয়ে আগে থেকে কোনো চিন্তাভাবনা ছিল না। মনটা ভালো ছিল, হুট করেই তাদের নাম স্বপ্ন, পদ্মা ও সেতু রাখা হয়েছে। এখানে পলিটিক্যাল কোনো বিষয় ছিল না।’

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন