বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ইসমত আরা এ ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন। আদালত সূত্রে জানা গেছে, সকালে টোক বাজারে ব্যবসায়ী আসাদ মিয়া মাংস বিক্রি করছিলেন। এ সময় ওই মাংস থেকে দুর্গন্ধ বের হচ্ছিল। সকাল ১০টার দিকে বিষয়টি ভ্রাম্যমাণ আদালতের নজরে আসে। আদালতের উপস্থিতি টের পেয়ে আসাদ কৌশলে পালিয়ে যান। পরে বস্তাভর্তি প্রায় ৫০ কেজি মাংস জব্দ করে পাশের শীতলক্ষ্যা নদীতে ফেলে দেওয়া হয়।

অভিযান চালান ভ্রাম্যমাণ আদালত। মূল্যতালিকা, প্রাণীর ধরন ও প্রাণিসম্পদ বিভাগের জবাই সনদ না থাকায় তিন মাংস বিক্রেতাকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

ইউএনও ইসমত আরা বলেন, পচা মাংস জব্দ করে তা নদীতে ফেলে দেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া তিন মাংস বিক্রেতাকে জরিমানা করা হয়েছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন