default-image

বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক রুহুল কুদ্দুস তালুকদার বলেছেন, বিএনপি গণতান্ত্রিক দল হিসেবে উপনির্বাচনে অংশ নিয়েছে। নির্বাচনের মাধ্যমে জনগণের রায় নিয়ে বিএনপি রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় যেতে চায়। গণতন্ত্রকে সমুন্নত রাখার জন্য অত্যাচার-নির্যাতন সহ্য করে কারচুপির নির্বাচন জেনেও অংশ নিচ্ছে বিএনপি।

বুধবার দুপুরে সিরাজগঞ্জের নলকায় একটি বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থার মিলনায়তনে বিএনপির নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সভায় এসব কথা বলেন রুহুল কুদ্দুস। তিনি সিরাজগঞ্জ-১ (কাজীপুর ও সদর উপজেলার আংশিক) আসনের আসন্ন উপনির্বাচনে দলটির নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সমন্বয়ক হিসেবে কাজ করছেন।

বিজ্ঞাপন
গত ১৩ জুন সিরাজগঞ্জ–১ আসনের সাংসদ মোহাম্মদ নাসিম মারা যান। এ কারণে আসনটি শূন্য ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন। ১২ নভেম্বর এখানে ভোট নেওয়া হবে।

সভায় বিএনপির এই নেতা আরও বলেন, সিরাজগঞ্জ-১ আসনে যদি পাবনার ঈশ্বরদীর মতো ষড়যন্ত্রের নির্বাচন হয়, তাহলে ১২ নভেম্বরের পর আগামী নির্বাচনে বিএনপি যাবে কি না, তা ভেবে দেখা হবে। কর্মীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘১২ তারিখ পর্যন্ত আমাদের প্রার্থী যেখানে যাবেন, আমি দলনেতা হিসেবে সঙ্গে আছি। আপনারা আমাকে সাহায্য করবেন।’

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ও নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্যসচিব সাইদুর রহমান, বিএনপির প্রার্থী সেলিম রেজা, নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্য রবিউল হাসান, সিমকী ইমাম খান, জেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হারুন অর রশিদ খান প্রমুখ।

গত ১৩ জুন এ আসনের সাংসদ মোহাম্মদ নাসিম মারা যান। এ কারণে আসনটি শূন্য ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন। ১২ নভেম্বর এখানে ভোট নেওয়া হবে। এ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও মোহাম্মদ নাসিমের ছেলে তানভীর শাকিল জয়।

মন্তব্য পড়ুন 0