বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

নিহত ব্যক্তিরা হলেন কাহালুর পিলকুঞ্জ তিনদীঘি গ্রামের মোটরসাইকেল মেকানিক আজমল হোসেন (২৬) এবং বগুড়া শহরের নামাজগড় এলাকার শাহিনুর রহমান (২৮)। এর মধ্যে আজমল ঘটনাস্থলে মারা গেছেন। স্থানীয় লোকজন শাহিনুরকে গুরুতর আহত অবস্থায় বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সন্ধ্যা ছয়টার দিকে তিনি মারা যান।

আজমল ও শাহিনুর মোটরসাইকেলে করে আজ বিকেলে দুপচাঁচিয়া উপজেলায় যাচ্ছিলেন। পথে বগুড়াগামী একটি বাসের সঙ্গে তাঁর মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আজমল ও শাহিনুর মোটরসাইকেলে করে আজ বিকেলে দুপচাঁচিয়া উপজেলায় যাচ্ছিলেন। পথে শেখাহার এলাকায় নওগাঁ থেকে বগুড়াগামী একটি বাসের সঙ্গে তাঁর মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে মোটরসাইকেলসহ দুই আরোহী বাসের নিচে চাপা পড়েন। ঘটনাস্থলে মোটরসাইকেলচালক আজমল নিহত হন। গুরুতর আহত শাহিনুরকে হাসপাতালের চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

কাহালু থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমবার হোসেন বলেন, দুর্ঘটনার পর বগুড়াগামী ওই বাস পালিয়ে গেছে। নিহত ব্যক্তিদের লাশ উদ্ধার করে শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন