default-image

যশোরের কেশবপুরে এক ভাঙ্গারি ব্যবসায়ী খুন হয়েছেন। নিহতের নাম সাঈদ সরদার (৪২)। আজ মঙ্গলবার রাতে নেপাকাটি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ ঘটনাস্থলে রয়েছে। সাঈদ সরদারকে উপর্যুপরি কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার কন্দর্পপুর গ্রামের ইজাহার আলীর ছেলে সাঈদ সরদার ভ্যানে করে পুরোনো লোহা ও ব্যাটারি কিনে বিক্রি করেন। আজ রাতে তিনি নেপাকাটি গ্রামে গিয়েছিলেন। সেখানে তাঁর লাশ পড়ে থাকার খবরে রাত আটটার দিকে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। নিহতের মাথায় অনেকগুলো কোপের চিহ্ন রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, এখানেই তাঁকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। তাঁর সঙ্গে থাকা ভ্যানটিও ঘটনাস্থলে নেই বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন।

কেশবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জসীম উদ্দীন জানান, তিনি ঘটনাস্থলে আছেন। লাশের মাথায় উপর্যুপরি কোপের দাগ রয়েছে। কী কারণে সাঈদ সরদারকে খুন করা হয়েছে, এখনই তা বলা যাচ্ছে না। তবে তিনি ভ্যানে করে ভাঙ্গারির ব্যবসা করতেন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0