default-image

খুলনা জেলায় করোনা শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ছয় হাজার ছাড়িয়েছে। গত ১৩ এপ্রিল জেলায় প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হওয়ার পর আজ বৃহস্পতিবার ১৫১তম দিনে রোগীর সংখ্যা ছয় হাজার ছয়জন হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

এদিকে খুলনা বিভাগের ১০ জেলায় আজ সকাল আটটা পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ১২৩ জনের শরীরে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে বিভাগে কোভিড-১৯-এ আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২০ হাজার ৩৮০। একই সময়ে বিভাগে সুস্থ হয়েছেন ১৮৯ জন। মোট সুস্থ হওয়া মানুষের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৫ হাজার ৯৬৫। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৭৮ শতাংশের কিছু বেশি। বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর আজ এসব তথ্য জানিয়েছে।

বিজ্ঞাপন

খুলনা বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক রাশেদা সুলতানা জানান, বিভাগে নতুন সংক্রমিত ১২৩ জনের মধ্যে বাগেরহাটে ১ জন, চুয়াডাঙ্গায় ১১, যশোরে ৩৫, ঝিনাইদহে ১১, খুলনায় ২৯, কুষ্টিয়ায় ১৯, মাগুরায় ৭, মেহেরপুর ও নড়াইলে ৫ জন করে শনাক্ত হয়েছেন। এই সময়ে সাতক্ষীরায় কোনো রোগী শনাক্ত হয়নি।

২৪ ঘণ্টায় বিভাগের মধ্যে খুলনা ও মেহেরপুরে একজন করে মোট দুজন কোভিড-১৯ রোগী মারা গেছেন। এ নিয়ে বিভাগে করোনাভাইরাসে মৃত মানুষের মোট সংখ্যা ৩৫৪। এ পর্যন্ত মারা যাওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে খুলনায় ৯২ জন, কুষ্টিয়ায় ৬৪, যশোরে ৪২, চুয়াডাঙ্গায় ৩১, ঝিনাইদহ ও সাতক্ষীরায় ৩০ জন করে, বাগেরহাটে ২২, মাগুরা ও মেহেরপুরে ১৩ জন করে, নড়াইলে ১৭ জন রয়েছেন। বিভাগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের মধ্যে মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৭৪ শতাংশ।

বিজ্ঞাপন

স্বাস্থ্য বিভাগ জানায়, বিভাগে এ পর্যন্ত সর্বোচ্চ ৬ হাজার ৬ জন রোগী শুধু খুলনা জেলায় শনাক্ত হয়েছেন, যা বিভাগের মোট রোগীর প্রায় ৩০ শতাংশ। এ ছাড়া বাগেরহাটে ৯৩৩ জন, চুয়াডাঙ্গায় ১ হাজার ৩২৩, যশোরে ৩ হাজার ৫৯৯, ঝিনাইদহে ১ হাজার ৭৭৭, কুষ্টিয়ায় ২ হাজার ৯৮৯, মাগুরায় ৮৬৪, মেহেরপুরে ৫৬৮, নড়াইলে ১ হাজার ২৫৭ ও সাতক্ষীরায় ১ হাজার ৬৪ জনের করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে।

মন্তব্য পড়ুন 0