বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সূত্রে জানা যায়, নতুন করে করোনায় শনাক্ত ব্যক্তিদের মধ্যে কুষ্টিয়ার আছেন সর্বোচ্চ ৪৩ জন। এ ছাড়া চুয়াডাঙ্গার ১৫ জন, ঝিনাইদহের ৪২, খুলনার ১৭, নড়াইলের ৯, সাতক্ষীরার ১৩, বাগেরহাটের ২, মাগুরার ৫, মেহেরপুরের ৩ ও যশোরের ১৭ জন বাসিন্দা আছেন। শনাক্তের সংখ্যা বিবেচনায় জেলাগুলোর মধ্যে শীর্ষে আছে খুলনা। এখানে ২৭ হাজার ৫৩৫ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। সবচেয়ে কম মাগুরা জেলায়, ৪ হাজার ৯২ জন।

বিভাগে করোনায় ৩ হাজার ৬১ জন মারা গেছেন, মৃত্যুর হার ২ দশমিক ৭৮। করোনায় মারা যাওয়া সবশেষ আটজনের মধ্যে যশোরে তিনজন, কুষ্টিয়ার ও খুলনায় দুইজন করে এবং চুয়াডাঙ্গার একজন বাসিন্দা রয়েছেন। বিভাগের মধ্যে খুলনা জেলায় করোনায় সর্বোচ্চ ৭৭৬ জনের মৃত্যু হয়েছে, দ্বিতীয় সর্বোচ্চ মৃত্যু কুষ্টিয়ায় ৭৪৪ জনের।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য বিশ্লেষণে দেখা গেছে, বিভাগে চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যা প্রতিদিন কমছে। আজ বাসা ও হাসপাতাল মিলিয়ে বিভাগের ১০ জেলায় করোনা রোগী ৫ হাজার ৭৬২ জন। এর মধ্যে ২৪০ জন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন। ১০ জেলায় এখন পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ১ হাজার ৪০৩ জন। শনাক্তের সংখ্যা বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯২।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন