default-image

খুলনা বিভাগে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) শনাক্তের ২১৮তম দিনে মৃতের সংখ্যা ৪০০ ছুঁয়েছে। গতকাল বুধবার সকাল আটটা থেকে আজ বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে বিভাগে তিনজন কোভিড আক্রান্ত ব্যক্তি মারা গেছেন। একই সময়ে নতুন করে ৩৮ জনের করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছেন। এ নিয়ে বিভাগে এখন পর্যন্ত করোনা রোগী শনাক্ত হলেন মোট ২২ হাজার ৬৫১ জন।
খুলনা বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্যমতে, খুলনা বিভাগের মধ্যে চুয়াডাঙ্গায় প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয় গত ১৯ মার্চ। বিভাগের ১০ জেলায় এখন পর্যন্ত করোনা আক্রান্তদের মধ্যে ২১ হাজার ২৬৯ জন সুস্থ হয়েছেন।

শনাক্ত বিবেচনায় বিভাগে সুস্থ হওয়ার হার প্রায় ৯৪ শতাংশ। বিভাগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের মধ্যে মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৭৭ শতাংশ।
রাশেদা সুলতানা, খুলনা বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক

খুলনা বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক রাশেদা সুলতানা জানান, শনাক্ত বিবেচনায় বিভাগে সুস্থ হওয়ার হার প্রায় ৯৪ শতাংশ। বিভাগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের মধ্যে মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৭৭ শতাংশ।

বিজ্ঞাপন

বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালকের দপ্তর জানায়, ২৪ ঘণ্টায় বিভাগের মধ্যে খুলনা, কুষ্টিয়া ও চুয়াডাঙ্গায় ১ জন করে মোট তিনজন কোভিড রোগী মারা গেছেন। এ নিয়ে বিভাগে করোনায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪০০। এ পর্যন্ত মারা যাওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে খুলনায় ১০১ জন, কুষ্টিয়ায় ৭৭ জন, যশোরে ৪৮ জন, চুয়াডাঙ্গা ও ঝিনাইদহে ৩৫ জন করে, সাতক্ষীরায় ৩০ জন, বাগেরহাটে ২৬ জন, মাগুরায় ১৩ জন, মেহেরপুরে ১৫ জন এবং নড়াইলে ২০ জন রয়েছেন।

স্বাস্থ্য বিভাগ জানায়, বিভাগে জেলাভিত্তিক হিসাবে এ পর্যন্ত সর্বোচ্চ ৬ হাজার ৫৭৯ জন রোগী শুধু খুলনা জেলায় শনাক্ত হয়েছেন। এ ছাড়া বাগেরহাটে ১ হাজার ৮ জন, চুয়াডাঙ্গায় ১ হাজার ৪৯১ জন, যশোরে ৪ হাজার ৬৩ জন, ঝিনাইদহে ২ হাজার ১৯ জন, কুষ্টিয়ায় ৩ হাজার ৪১০ জন, মাগুরায় ৯৩৮ জন, মেহেরপুরে ৬৪৬ জন, নড়াইলে ১ হাজার ৩৮৯ জন এবং সাতক্ষীরায় ১ হাজার ১০৮ জনের করোনা সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে।

মন্তব্য করুন