default-image

করোনা পরিস্থিতি রোধে চলছে সর্বাত্মক লকডাউন। রাস্তায় মানুষের চলাচল এমনিতেই কম। এর মধ্যে গভীর রাতে বাসার আশপাশে শিশুর কান্নার শব্দ শুনে চমকে যান এক যুবক। কান্নার উৎস খুঁজতে গিয়ে দেখেন, ফুটপাতে পড়ে আছে একটি নবজাতক।

সঙ্গে সঙ্গে তিনি জাতীয় জরুরি সেবা নম্বরে ফোন দেন। অল্প সময়ের মধ্যে পুলিশ এসে শিশুটিকে উদ্ধার করে। গতকাল শুক্রবার দিবাগত রাত দুইটায় চট্টগ্রাম নগরের ওয়াসার মোড়ে এ ঘটনা ঘটে।

ওয়াসা মোড়ের প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে থেকে সদ্যোজাত ওই কন্যাশিশুকে উদ্ধার করে চকবাজার থানার পুলিশ। ফেলে যাওয়া ওই নবজাতককে উদ্ধার করে পুলিশ চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে ভর্তি করেছে।

বিজ্ঞাপন

চকবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর মাহমুদ বলেন, ‘জাতীয় জরুরি সেবা নম্বরের (৯৯৯) ফোন পেয়ে ওই নবজাতককে উদ্ধার করা হয়েছে। মামুন নামের স্থানীয় এক যুবক তাঁর বাসার সামনে ফুটপাতে নবজাতকের কান্নার শব্দ শুনতে পেয়ে ফোন দেন। পরে ওখান থেকে নবজাতককে উদ্ধার করি। সেখান থেকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করি। নবজাতকটি এখন আশঙ্কামুক্ত।’

পুলিশ জানায়, এ ব্যাপারে পরে আইনি পদক্ষেপ নেওয়া হবে। আশপাশের সিসি ক্যামেরার ফুটেজ সংগ্রহ করে কীভাবে নবজাতকটি ওখানে এল, তা যাচাই করে দেখা হবে।

এর আগে ২০১৭ সালে নগরের আকবর শাহ এলাকা থেকে এক নবজাতক উদ্ধার করেছিলেন ওসি আলমগীর মাহমুদ। পরে আদালতের মাধ্যমে ওই শিশুকে এক নিঃসন্তান দম্পতির কাছে হস্তান্তর করা হয়।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন