বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

আটক সুজনসহ আহত সোহেল ও রাসেল খান পাথরঘাটা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন। সোহেল ও রাসেল খান বলেন, দিবাগত রাত তিনটার দিকে ঘরের সামনের দরজা ভেঙে দেশি অস্ত্রসহ চারজন ঘরের ভেতরে প্রবেশ করেন। একপর্যায়ে স্বর্ণালংকার ও টাকা লুট করেন। বাধা দিলে সোহেল খানের মাথার ওপর রাম দা দিয়ে আঘাত করলে তিনি গুরুতর জখম হন। এ সময় অপর সদস্যরা রাসেল খানকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করেন।

চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এলে হামলাকারী ডাকাতদের মধ্যে সুজন নামের একজনকে আটক করা হয়। অপর তিনজন পালিয়ে যান। হামলার সময় বাইরে আরও বেশ কয়েকজন ছিলেন।

পাথরঘাটা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক জি এম আকবর বলেন, ওই ঘটনায় দুজন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। তাঁদের মধ্যে সোহেল খানের মাথায় জখম থাকায় তাঁর আঘাত গুরুতর।

পাথরঘাটা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সঞ্জয় মজুমদার প্রথম আলোকে বলেন, আটক সুজন গতকাল রাত থেকে পুলিশের জিম্মায় পাথরঘাটা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন, তদন্ত চলছে। লিখিত অভিযোগ সাপেক্ষে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন