এলাকাবাসী ও নিহতের স্বজনদের ভাষ্য, আজগর আলী নিজের ভাই–বোনদের না জানিয়ে পৈতৃক সম্পত্তি অন্যের কাছে বিক্রি করে দেওয়ার চেষ্টা করছিলেন। এ নিয়ে আজ সকালে বড় ভাই আলী হোসেনের সঙ্গে তাঁর বাগ্‌বিতণ্ডা ও হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। একপর্যায়ে ছোট ভাই বড় ভাইয়ের বুকে ছুরি মারেন।

আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে আলী হোসেনকে উদ্ধার করে সাভারের আশুলিয়ার একটি হাসপাতালে নিয়ে যান।

কর্তব্যরত চিকিৎসক তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। ঘটনার পর থেকে আজগর আলী ও তাঁর পরিবারের লোকজন পলাতক।

কাশিমপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. মনিরুজ্জামান এই খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন