বিজ্ঞাপন

চান্দগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মোস্তাফিজুর রহমান আজ শুক্রবার সকালে প্রথম আলোকে বলেন, চান্দগাঁও থানাধীন মৌলভী পুকুরপাড় থেকে সিঅ্যান্ডবি ও আশপাশ এলাকায় রাত্রিকালীন ডিউটিতে ছিলেন সালাউদ্দিন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তিনি জানতে পারেন, একটি কালো মাইক্রোবাসে করে (রেজিস্ট্রেশন নম্বর ঢাকা মেট্রো-চ-১৫-৩৬৬৫) পার্বত্য এলাকা থেকে চোলাই মদ চট্টগ্রাম শহরে নেওয়া হচ্ছে। সালাউদ্দিন ও চালক কনস্টেবল মো. মাসুম চান্দগাঁও থানাধীন মেহেরাজ খান ঘাটা পেট্রল পাম্পের সামনে ওই গাড়িটিকে থামার জন্য সংকেত দেন। চালক থামানোর মতো করে গাড়ির গতি কমিয়ে আনলে ওই দুই পুলিশ সদস্য গাড়ির সামনে যান। কিন্তু গাড়ির চালক আবারও গতি বাড়িয়ে দেন। এতে সালাউদ্দীন ধাক্কা খেয়ে সড়কে ছিটকে পড়ে মাথায়, কোমরে ও শরীরের বিভিন্ন অংশে আঘাত পান। মাসুমও আঘাত পান।

ওসি মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যান সালাউদ্দিন। একই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন মাসুম। গাড়িটি জব্দ করেছে পুলিশ। তবে এর চালক ও তাঁর সঙ্গীরা পালিয়েছেন। গাড়িটি থেকে ৭৩০ লিটার দেশীয় চোলাই মদ উদ্ধার করা হয়। তিনি বলেন, ঘটনায় জড়িত চালক ও অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন