১৬১তম রবীন্দ্রজয়ন্তী উপলক্ষে ‘ভুবনজোড়া আসনখানি’ শীর্ষক অনুষ্ঠানে বক্তারা এসব কথা বলেন। বুধবার বাংলাদেশ রবীন্দ্রসঙ্গীত শিল্পী সংস্থার চট্টগ্রাম বিভাগীয় শাখা এ অনুষ্ঠান আয়োজন করে।
বুধবার সন্ধ্যায় চট্টগ্রাম শিল্পকলা একাডেমিতে কথামালা ও রবীন্দ্রসংগীতের এ আয়োজন অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে তিন গুণী শিল্পীকে সম্মাননা দেওয়া হয়। তাঁরা হলেন রবীন্দ্রসংগীতশিল্পী শীলা মোমেন, আইরিন সাহা ও শাশ্বতী তালুকদার।

শিল্পী সংস্থার সভাপতি আনোয়ারা আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন একুশে পদকপ্রাপ্ত বংশীবাদক ওস্তাদ ক্যাপ্টেন আজিজুল ইসলাম। প্রধান অতিথি ছিলেন দৈনিক আজাদীর সম্পাদক এম এ মালেক। স্বাগত বক্তব্য দেন সংস্থার সাধারণ সম্পাদক লাকী দাশ। পরে ঢাকার মীরা মণ্ডল, শ্রেয়সী রায়, লাকী দাশসহ সংস্থার শিল্পীরা সংগীত পরিবেশন করেন। অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করেন আয়েশা হক।

১৬১তম রবীন্দ্রজয়ন্তী উপলক্ষে ‘একি লাবণ্যে পূর্ণ প্রাণ’ শীর্ষক আরেকটি রবীন্দ্রসন্ধ্যার আয়োজন করে রক্তকরবী। বুধবার সন্ধ্যায় নগরের নন্দনকাননের ফুলকি মিলনায়তনে এ অনুষ্ঠান হয়। এতে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রবীন্দ্র গবেষক পীতম সেনগুপ্ত। বক্তব্য দেন কবি ও সাংবাদিক আবুল মোমেন এবং সংগীতজ্ঞ শীলা মোমেন।

পরে ‘একি লাবণ্যে পূর্ণ প্রাণ’, ‘যদি প্রেম দিলে না প্রাণে’, ‘তুমি যে সুরের আগুন লাগিয়ে দিলে’, ‘এই লভিনু সঙ্গ তব’ শীর্ষক রবীন্দ্রসংগীত পরিবেশন করেন রক্তকরবীর শিল্পীরা।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন