default-image

পানিসম্পদ উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক বলেছেন, ‘এই সরকারের আমলেই চাঁদপুর-শরীয়তপুর নৌপথে সহজ যোগাযোগের জন্য চাঁদপুর-শরীয়তপুর টানেল নির্মাণে উদ্যোগ নেওয়া হবে। এতে যানবাহনের পাশাপাশি ট্রেনও চলাচল করতে পারবে। চাঁদপুর-৩ আসনের সাংসদ ও শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনিও এ ব্যাপারে একমত হয়েছেন। আমরা শিগগিরই প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলে পরবর্তী উদ্যোগ গ্রহণ করব।’

আজ মঙ্গলবার বেলা ১১টায় চাঁদপুর-শরীয়তপুর ফেরিঘাট এলাকার সংযোগ সড়ক পরিদর্শনে এসে সাংবাদিকদের এসব কথা জানান পানিসম্পদ উপমন্ত্রী। এ সময় উপমন্ত্রী আরও বলেন, ‘চাঁদপুর ও আমার নির্বাচনী এলাকা শরীয়তপুরের অনেক এলাকা নদীভাঙনে ঝুঁকিপূর্ণ। এভাবে ঘুরে ঘুরে দেশের সব নদীভাঙন ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা চিহ্নিত করেছি। এরই মধ্যে চাঁদপুর শহর সংরক্ষণ প্রকল্পের স্থায়ী বাঁধ নির্মাণের জন্য ৪২০ কোটি টাকার প্রকল্প প্রণয়ন করা হয়েছে। এটি একনেকে পাঠানো হবে।’ তিনি বলেন, ‘আমাদের অর্থনৈতিক সক্ষমতা বেড়েছে। আমরা এখন আর পাঁচ-দশ বছরের জন্য কোনো প্রকল্প করতে চাই না। কমপক্ষে ৫০ বছরের জন্য স্থায়ী প্রকল্প নিয়ে সারা দেশে কাজ করব। চাঁদপুর শহর সংরক্ষণ প্রকল্পটি আগামী বর্ষার আগেই আমরা শেষ করব।’

এ সময় উপমন্ত্রীর সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন চাঁদপুর জেলা প্রশাসক মো. মাজেদুর রহমান খান, পুলিশ সুপার মো. মাহবুবুর রহমান, পাউবোর কুমিল্লা বিভাগীয় প্রধান প্রকৌশলী মো. জহির উদ্দিন আহমেদ, চাঁদপুরের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মো. শফিকুল ইসলাম ও নির্বাহী প্রকৌশলী মো. মামুন হাওলাদার প্রমুখ।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন