default-image

সুনামগঞ্জের ধরমপাশা উপজেলার চামরদানী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের পদটি শূন্য ঘোষণা করা হয়েছে। মঙ্গলবার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তি সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

ইউএনও স্বাক্ষরিত ওই বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে, উপজেলার চামরদানী ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) নির্বাচিত চেয়ারম্যান জাকিরুল আজাদের বিরুদ্ধে গৃহকরের অর্থ এবং ভিজিডি ও শিশুখাদ্য আত্মসাৎ, ভিজিডির কার্ডধারীদের কাছ থেকে অবৈধভাবে অর্থ আদায়, একজন ইউপি সদস্যের স্বাক্ষর জাল করে পরিষদের কার্যক্রম পরিচালনাসহ নানা ধরনের অনৈতিক কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগ ছিল। তাঁর বিরুদ্ধে করা এসব অভিযোগ স্থানীয় তদন্তে প্রমাণিত হয়েছে।

ওই বিজ্ঞপ্তিতে আরও উল্লেখ করা হয়েছে, বিভিন্ন অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় স্থানীয় সরকার বিভাগ থেকে সাময়িক বরখাস্তসহ ইউপি চেয়ারম্যান জাকিরুল আজাদকে কারণ দর্শানোর জন্য বলা হয়। পরে তাঁর দাখিলকৃত কারণ দর্শানোর জবাব ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ সন্তোষজনক মনে করেনি। তাই জাকিরুল আজাদকে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগ ১৪ মার্চ এক প্রজ্ঞাপন দিয়ে অপসারণ করে।

এ বিষয়ে ধরমপাশার ইউএনও মো. মুনতাসির হাসান বলেন, ‘স্থানীয় সরকার ইউনিয়ন পরিষদ আইন ২০০৯–এর ৩৫(২) ধারার প্রদত্ত ক্ষমতাবলে আমি চামরদানী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের পদটি চলতি বছরের ১৪ মার্চ থেকে শূন্য ঘোষণা করলাম। এ–সংক্রান্ত চিঠি স্থানীয় সরকার বিভাগের সিনিয়র সচিবসহ সংশ্লিষ্টদের কাছে পাঠানো হয়েছে।’

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন