বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

আদালত সূত্রে জানা গেছে, ২০১৭ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি মানিক হোসেন তাঁর অটোরিকশা নিয়ে বাড়ি থেকে বের হন। এরপর আর বাড়িতে ফেরেননি তিনি। পরদিন সকালে জেলা সদরের মালিগাছা ইউনিয়নের রাখালগাছি গ্রামের একটি ধানখেতে তাঁর লাশ মেলে। এ ঘটনায় মানিকের বাবা আবদুল গফুর বাদী হয়ে অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিদের আসামি করে একটি হত্যা মামলা করেন।

পরে পুলিশের তদন্তে উঠে আসে, ছিনতাইকারী চক্র মানিককে হত্যার পর তাঁর অটোরিকশাটি ছিনতাই করে। এই সূত্র ধরে সন্দেহভাজন আসামি হিসেবে স্বপন প্রামাণিক ও ইকবাল হোসেনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। পরে আটক দুজন হত্যার কথা স্বীকার করে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। এরপর আদালত মামলাটির দীর্ঘ শুনানি ও সাক্ষ্য–প্রমাণ গ্রহণ শেষে রায় ঘোষণা করেন।

জেলা ও দায়রা জজ আদালতের সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) আবদুস সামাদ খান রায়ের তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি প্রথম আলোকে জানান, গ্রেপ্তারের পর থেকে আসামিরা জেলহাজতেই ছিলেন। রায় ঘোষণার সময় দুই আসামিকে কাঠগড়ায় হাজির করা হয়। পরে তাঁদের আবার কারাগারে পাঠানো হয়।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন