default-image

চৈত্রের ভারি কুয়াশায় রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া ও মানিকগঞ্জের পাটুরিয়া নৌপথে আড়াই ঘণ্টার বেশি ফেরিসহ নৌযান বন্ধ ছিল। এ সময় যানবাহনবোঝাই তিনটি ফেরি মাঝনদীতে নোঙর করতে বাধ্য হয়। এ ছাড়া আজ সোমবার সকালে একসঙ্গে তিনটি ফেরি যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে বিকল হয়ে পড়লে ফেরিস্বল্পতা দেখা দেয়। এ কারণে উভয় ঘাটে যানবাহনের লম্বা লাইন পড়েছে।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন সংস্থার (বিআইডব্লিউটিসি) দৌলতদিয়া কার্যালয় সূত্র জানায়, গতকাল মধ্যরাত পর্যন্ত নদী অববাহিকায় কুয়াশার লক্ষণ দেখা না গেলেও রাত শেষে হঠাৎ কুয়াশা দেখা দেয়। রাত বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে কুয়াশার মাত্রা বাড়তে থাকলে ফেরি চলাচলে বিঘ্নিত হয়। এভাবে চলার পর আজ ভোর ৫টার পর থেকে নদী অববাহিকায় ঘন কুয়াশা পড়তে থাকে। সামান্য দূরের কিছুই দেখতে না পেয়ে দুর্ঘটনা এড়াতে কর্তৃপক্ষ ভোর সাড়ে ৫টার দিকে ফেরি বন্ধ করে দেয়।

বিজ্ঞাপন

এর আগে দৌলতদিয়া ও পাটুরিয়া ঘাট থেকে ছেড়ে যাওয়া তিনটি ফেরি মাঝনদীতে কুয়াশার কবলে পড়ে। ফেরির চালকেরা দুর্ঘটনা এড়াতে মাঝনদীতে ফেরি নোঙর করতে বাধ্য হন। এ সময় ফেরি তিনটিতে যাত্রীবাহী বাস, পণ্যবাহী ও ব্যক্তিগত গাড়ি মিলে অন্তত ২৫টির মতো গাড়ি এবং শ পাঁচেক যাত্রী ছিলেন। চৈত্র মাসে হঠাৎ এমন ভারী কুয়াশায় মাঝনদী ও সড়কে আটকে পড়ে কয়েক হাজার যাত্রীকে দুর্ভোগ পোহাতে হয়। আড়াই ঘণ্টা পর সকাল ৮টার দিকে কুয়াশা কমলে ফেরিগুলো ঘাট ছাড়তে থাকে।

এদিকে আজ সকালে যান্ত্রিক ক্রটিতে তিনটি ফেরি একসঙ্গে বিকল হয়ে পড়ে। এতে ফেরিস্বল্পতা দেখা দেয়। ঘাট কর্তৃপক্ষ জানায়, ইউটিলিটি ফেরি বনলতা, রো রো ফেরি বীরশ্রেষ্ঠ মতিউর রহমান ও শাহজালাল বিকল হয়ে পড়ে। ফেরি তিনটিকে পাটুরিয়ার ভাসমান কারখানা মধুমতিতে রেখে মেরামত করা হচ্ছে। কুয়াশা ও ফেরিস্বল্পতার কারণে দৌলতদিয়া প্রান্তে ঢাকা-খুলনা মহাসড়কে প্রায় তিন কিলোমিটার যানবাহনের লম্বা লাইন তৈরি হয়েছে। পাটুরিয়া প্রান্তেও ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে গাড়ির লম্বা লাইন দেখা গেছে।
বিআইডব্লিউটিসি দৌলতদিয়া ঘাট কার্যালয়ের সহকারী ব্যবস্থাপক খোরশেদ আলম বলেন, ‘চৈত্র মাসে এমন কুয়াশা আগে দেখিনি। আজ হঠাৎ ভারী কুয়াশায় নদী অববাহিকা অন্ধকারাচ্ছন্ন হয়ে পড়ে। মাঝনদীতে তিনটি ফেরি আটকা পড়ে। আবার তিনটি ফেরি বিকল হয়ে যায়। সব মিলিয়ে উভয় ঘাটে যানবাহনের লম্বা লাইন হয়ে গেছে।’

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন