বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, বীরগঞ্জ উপজেলার ১৬ মাইল এলাকার আমিন জুট মিলে চাকরি করে শাকিল। প্রতিদিন সকালে তাকে কর্মস্থলে পৌঁছে দেন বাবা হাকিমউদ্দিন। আজ সকালেও নিজের অটোরিকশায় করে ছেলেকে নিয়ে গন্তব্যের উদ্দেশে বের হয়েছিলেন।

সকাল সাতটার দিকে অটোরিকশা পৌঁছায় পাটকল থেকে কিছুটা দূরে দিনাজপুর-পঞ্চগড় মহাসড়কের জননী পেট্রল পাম্পের সামনে। সেখানে পঞ্চগড়গামী একটি মাইক্রোবাসের (ঢাকা মেট্রো-চ-১৪-২৫৭৪) সঙ্গে অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। দুমড়ে–মুচড়ে যায় অটোরিকশাটি। এতে গুরুতর আহত হন বাবা-ছেলে। প্রথমে তাঁদের নেওয়া হয় বীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে।

অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় সেখানকার চিকিৎসকেরা হাকিমউদ্দিনকে দিনাজপুর এম আবদুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পরামর্শ দেন। ওই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সকাল সাড়ে নয়টায় তাঁর মৃত্যু হয়।

বীরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল মতিন বলেন, মাইক্রোবাসটিকে জব্দ করা হয়েছে। তবে চালক পলাতক। এ ঘটনায় বীরগঞ্জ থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন