নিহত মাছুম মিয়া পৌর শহরের বাড়ী জগন্নাথপুর গ্রামের নুর মিয়ার ছেলে। এ ঘটনায় নিহত মাছুমের মা রিনা বেগম বাদী হয়ে আজ ১০ জনকে আসামি করে জগন্নাথপুর থানায় একটি হত্যা মামলা করেন। পুলিশ অভিযান চালিয়ে চারজনকে গ্রেপ্তার করেছে। গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন নিহত মাছুমের দাদা মনোফর আলী (৭০), চাচি সাহেদা বেগম (২৭), চাচাতো ভাই হোসাইন মিয়া (২০) ও হাসান মিয়া (২০)।

জগন্নাথপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান প্রথম আলোকে বলেন, তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের ঘটনায় আহত যুবকের মৃত্যুর পর থানায় হত্যা মামলা করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ চারজনকে গ্রেপ্তার করেছে।

পুলিশ ও এলাকার বাসিন্দাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে মাছুম মিয়া ও তাঁর চাচাতো ভাই হাসান আহমেদের (২৪) পরিবারের মধ্যে মনোমালিন্য চলছিল। গত বৃহস্পতিবার বিকেলে মাছুম মিয়ার ছোট ছেলে হাসান মিয়ার ঘরে গেলে হাসান মিয়ার পরিবারের লোকজন মাছুমের পরিবারের লোকজনকে গালিগালাজ শুরু করেন। একপর্যায়ে তুচ্ছ এ ঘটনা নিয়ে তাঁদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে গুরুতর আহত অবস্থায় মাছুম মিয়াকে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। আজ ভোরে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাঁর মৃত্যু হয়।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন