default-image

জামালপুরের মেলান্দহ উপজেলার একটি গ্রামে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। তিনি পেশায় ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী ছিলেন। গতকাল রোববার দুপুরে তাঁর ওপর হামলার ঘটনা ঘটে।

মামলা হওয়ার পর মেলান্দহ থানার পুলিশ আজ সোমবার এ তথ্য জানিয়েছে। এজাহারের বরাত দিয়ে পুলিশ বলেছে, গতকাল দুপুরে উপজেলার চরবানিপাকুরিয়া ইউনিয়নের চরপলিশা গ্রামে আবদুল হালিম নামের ওই ব্যবসায়ী তাঁর চাচাশ্বশুরের দ্বারা হামলার শিকার হন।

থানা-পুলিশ আরও জানায়, নিহত আবদুল হালিম একই উপজেলার আটাবাড়ী গ্রামের বাসিন্দা। দীর্ঘদিন ধরে তিনি চরপলিশা গ্রামে শ্বশুরবাড়িতে থাকতেন। চাচাশ্বশুর মো. কালামের সঙ্গে একখণ্ড জমি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে তাঁর বিরোধ চলছিল। বিষয়টি নিয়ে গতকাল সকালে গ্রামে সালিস হয়। কিন্তু সেখানে বিষয়টির কোনো সমাধান হয় না।

মামলায় অভিযোগ করা হয়েছে, দুপুরে মো. কালাম ও তাঁর লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হালিমের ওপর হামলা চালিয়ে মারধর করেন। ধারালো অস্ত্রের আঘাতের হালিম গুরুতর আহত হন। তাঁকে প্রথমে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেন স্বজনেরা। অবস্থার অবনতি হলে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান।

মেলান্দহ উপজেলার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এম এম ময়নুল ইসলাম বলেন, এ ঘটনায় নিহত ব্যক্তির শ্বশুর স্বপন মিয়া বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা করেছেন। আসামিরা পলাতক থাকায় কাউকে গ্রেপ্তার করা যায়নি।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন