বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

জাতীয় পার্টি সূত্র জানায়, ২০০৫ সালে জাতীয় পার্টির সম্মেলনে মাসুদুর রহমানকে জেলা কমিটির সভাপতি নির্বাচন করা হয়। সর্বশেষ ২০১৯ সালের কমিটিতেও তিনি সভাপতি হন। তিনি দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জাতীয় পার্টির প্রার্থী হিসেবে শরীয়তপুর-১ আসন থেকে নির্বাচন করেছিলেন। এ ছাড়া তিনি কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য। বছরখানেক আগে তিনি অসুস্থ হয়ে যান। কিছুদিন আগে ঢাকার হাসপাতালে চিকিৎসাধীনও ছিলেন।

মাসুদুর রহমান বলেন, ‘আমি ১৭ বছর ধরে জেলা জাতীয় পার্টির সভাপতির পদে আছি। ৬ বছর কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য। আমার ২০১৮ সালে ব্রেন স্ট্রোক হয়। সম্প্রতি আবার অসুস্থ হয়ে পড়লে ঢাকার একটি হাসপাতালে ভর্তি হই। তাঁর হৃৎপিণ্ডে চারটি ব্লক ধরা পড়ে। তাই শারীরিক অসুস্থতার কারণে কোনো কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করতে পারব না। জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় সদস্য ও জেলা সভাপতির পদ থেকে পদত্যাগ করলাম।’

শরীয়তপুর জেলা জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক মো. জাফর খান কালাম বলেন, মাসুদুর রহমান শারীরিকভাবে অসুস্থ। বিষয়টি কেন্দ্রীয় নেতারাও জানেন। তাঁর পদত্যাগের বিষয়টি কেন্দ্রীয় নেতাদের জানানো হয়েছে। এখন দলের চেয়ারম্যান ও মহাসচিব যে সিদ্ধান্ত দেবেন, সে অনুযায়ী জেলা কমিটি চলবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন