বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

দণ্ডপ্রাপ্ত ওই ব্যক্তি হলেন মো. শাহিনুর রহমনা (২৯)। তিনি উপজেলার খড়মা খানপাড়া এলাকার মৃত আবু সাঈদের ছেলে। শাহিনুর পেশায় দিনমজুর।

আদালত ও মামলা সূত্রে জানা গেছে, ২০১৭ সালের ২৪ জুলাই বিকেলে পারিবারিক কলহের জেরে আবু সাঈদকে তাঁর ছেলে শাহিনুর কোদাল দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর আহত করেন। এরপর শাহিনুর ও তাঁর স্ত্রী হালিমা বেগম (২০) বাড়ি থেকে পালিয়ে যান। পরে স্থানীয় লোকজন আবু সাঈদকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে দেওয়ানগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানকার চিকিৎসকদের পরামর্শে উন্নত চিকিৎসার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তাঁর মৃত্যু হয়।

ঘটনার পরদিন ২৫ জুলাই নিহত ব্যক্তির মেয়ে কালনী আক্তার বাদী হয়ে দেওয়ানগঞ্জ থানায় তাঁর ভাই শাহিনুর রহমান ও ভাবিকে আসামি করে হত্যা মামলা করেন। চার মাস পর ১৭ নভেম্বর আদালতে অভিযোগপত্র দেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা উপপরিদর্শক (এসআই) মো. সাইদুর রহমান। দীর্ঘ শুনানি শেষে আদালত আজ শাহিনুরকে আমৃত্যু সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন। তবে একই মামলায় হালিমা বেগমকে বেকসুর খালাস দিয়েছেন আদালত।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন