বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

আদালত সূত্রে জানা গেছে, আজ সন্ধ্যা পৌনে ছয়টায় বাটিকামারি গ্রামে এনামুল হক জীবন্ত মোরগ নিয়ে প্রচারণা চালাচ্ছিলেন। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই প্রার্থীকে নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে তিন হাজার টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয়। তাৎক্ষণিকভাবে ওই প্রার্থী জরিমানার টাকা পরিশোধ করেন।

জানতে চাইলে এনামুল হক বলেন, ‘আমার নির্বাচনী প্রতীক মোরগ। সরল বিশ্বাসে আমি মোরগ নিয়ে প্রচারণা শুরু করেছিলাম। জীবন্ত মোরগ নিয়ে প্রচারণা করা যাবে না, এমনটা আমার জানা ছিল না।’
একই সময় বাটিকামারি বাজারে চেয়ারম্যান প্রার্থী মাহাবুল ইসলাম ভোটারদের জন্য ভূরিভোজের আয়োজন করেছেন—এমন খবর পেয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান পরিচালনা করেন। এ সময় ওই প্রার্থীকে পাঁচ হাজার টাকা অর্থদণ্ড করা হয়।

মাহাবুল ইসলাম জানান, তিনি ভোটারদের ভূরিভোজের আয়োজন করেননি। তবে প্রচারণার কাজে নিয়োজিত কর্মীরা খিচুড়ি খাচ্ছিলেন। তবুও তিনি ভ্রাম্যমাণ আদালতের জরিমানা তাৎক্ষণিকভাবে পরিশোধ করেছেন।

নিশাত আঞ্জুমান বলেন, উভয় প্রার্থীকে পরবর্তী সময়ে আচরণবিধি লঙ্ঘন করা থেকে বিরত থাকার জন্য সতর্ক করা হয়েছে। তাঁরাও আচরণবিধি লঙ্ঘন না করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। জরিমানা থেকে আদায় করা অর্থ রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা দেওয়া হবে বলে জানান তিনি।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন