বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

পুলিশ ও নিহত শারফুলের স্বজনেরা জানান, শারফুল ঢালী আট বছর লেবাননে ছিলেন। প্রবাসে থাকাকালে বাবার কাছে টাকা পাঠাতেন। ছয় মাস আগে তিনি দেশে ফিরে আসেন এবং বাবার কাছে টাকা চাইলে তা দিতে অস্বীকৃতি জানান। এ নিয়ে বাবা–ছেলের মধ্যে প্রায়ই ঝগড়া হতো। গতকাল বুধবার সকালে বাগবিতণ্ডার সময় মা–বাবা ও ভাইয়ের বেধড়ক পিটুনিতে তিনি রক্তাক্ত জখম হন। এ সময় প্রতিবেশীরা তাঁকে উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। ঘটনার ২৪ ঘণ্টা পর আজ সকালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান শারফুল।

পাগলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাশেদুজ্জামান খবরের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, নিহত শারফুলের মা একটি ক্লিনিকে পুলিশি হেফাজতে চিকিৎসাধীন। এ ঘটনায় হত্যা মামলার প্রস্ততি চলছে। জড়িত ব্যক্তিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন