বিজ্ঞাপন

র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব-১৫) অধিনায়ক উইং কমান্ডার আজিম আহমেদ বলেন, ডাকাতের অবস্থান নেওয়ার খবর পেয়ে টেকনাফ ক্যাম্পের র‌্যাবের একটি দল অভিযানে যায়। দলটি টেকনাফ-কক্সবাজার আঞ্চলিক সড়কের ১৪ নম্বর সেতু এলাকায় পৌঁছালে ডাকাত দলের সদস্যরা র‌্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। এতে র‌্যাবের দুজন সদস্য সমরূপ চক্রবর্তী (২৭) ও মো. মাহবুবুর রহমান (২৮) আহত হন। র‌্যাব সদস্যরা নিজেদের জানমাল রক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছোড়েন। এ সময় উভয় পক্ষের গোলাগুলির একপর্যায়ে এক ডাকাত আহত হন। তাঁকে টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। ঘটনাস্থল থেকে একটি বিদেশি পিস্তল, একটি একনলা লম্বা বন্দুক, আট রাউন্ড গুলি ও একটি ম্যাগাজিন উদ্ধার করা হয়েছে।

র‌্যাব-১৫–এর উপ-অধিনায়ক স্কোয়াড্রন লিডার মোহাম্মদ তানভীর হাসান বলেন, রোহিঙ্গা ডাকাতের লাশটি থানা-পুলিশে হস্তান্তর করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য পুলিশ লাশটি কক্সবাজার সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন