default-image

ফেনীর পরশুরামে কোভিডে আক্রান্ত হয়ে ও করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা যাওয়া ব্যক্তিদের দাফন–কাফনে যিনি প্রত্যক্ষভাবে অংশগ্রহণ ও নেতৃত্ব দিয়ে আসছেন, সেই যোদ্ধা এখন নিজেই করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন।

তাঁর নাম ইয়াছিন শরিফ মজুমদার (৩৫)। তিনি পরশুরাম উপজেলা যুবলীগের সভাপতি, বিআরডিবির অধীন পরশুরাম কেন্দ্রীয় কৃষক সমবায় সমিতির চেয়ারম্যান ও উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আবদুল খালেক মামুন জানান, জ্বর, সর্দি, কাশি দেখা দিলে ২২ জুলাই ইয়াছিন শরিফের নমুনা সংগ্রহ করে নোয়াখালীর আবদুল মালেক মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ল্যাবে পাঠানো হয়। আজ রোববার দুপুরে পাওয়া ফলাফলে তাঁর করোনা পজিটিভ এসেছে। তিনি স্বাস্থ্য বিভাগের পরামর্শে নিজ বাসায় আইসোলেশনে আছেন।

দেশে সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর থেকে করোনায় কোনো ব্যক্তি মারা গেলে তাঁদের দাফন–কাফনে এগিয়ে এসেছিলেন ইয়াছিন শরিফ। তিনি উপজেলায় ১১ সদস্যের একটি দাফন–কাফন টিম গঠন করেন। তারপর থেকে উপজেলা প্রশাসনের সহায়তায় কোভিডে আক্রান্ত ও করোনার উপসর্গ নিয়ে মৃত ব্যক্তিদের দাফন দেওয়া শুরু করে তাঁর দল। পরশুরামে পৈতৃক বাড়ির এলাকায় এমন অনেকে ঢাকা, চট্টগ্রামসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে করোনায় সংক্রমিত হয়ে ও উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন। তাঁদেরও এলাকায় কবর দেওয়ার দায়িত্ব পালন করেন ইয়াছিন শরিফ।

করোনায় সংক্রমিত হওয়ার আগে ইয়াছিন শরিফ জানিয়েছেন, ইতিমধ্যে তিনি ও তাঁর দল প্রায় ৩০ জনকে দাফন দেওয়ার কাজ সম্পন্ন করেছে। বেশ কয়েকজন মৃত ব্যক্তির স্বজনেরা কবর খোঁড়ার জন্য খোন্তা বা কোদাল দিতেও ইতস্তত করেন। বৃষ্টির মধ্যে রাতের অন্ধকারে জেনারেটর জোগাড় করেও কবর খুঁড়ে লাশ দাফন করেছেন। তবু স্বজনেরা কোনো সহযোগিতা করেননি।

দাফনের বাইরে ইয়াছিন শরিফ নিজ উদ্যোগে চলতি মাসের মাঝামাঝি ‘হ্যালো অক্সিজেন’ নাম দিয়ে অক্সিজেন সিলিন্ডার পরশুরাম ও ফুলগাজী উপজেলায় করোনা রোগীদের বাড়ি পাঠিয়ে দেওয়ার সেবা কার্যক্রম শুরু করেন।

আবদুল খালেক মামুন জানান, পরশুরামে ইয়াছিন শরিফসহ এ পর্যন্ত ৭৬ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে দুজন মারা গেছেন। আর উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন সাত–আটজন। এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৪৪ জন। বর্তমানে ৩০ জন নিজ নিজ বাড়িতে আইসোলেশনে থেকে স্বাস্থ্য বিভাগের পরামর্শ নিয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

ইয়াছিন শরিফের চাচা ও পরশুরাম উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন মজুমদার বলেন, স্বাস্থ্য বিভাগের পরামর্শে ইয়াছিন শরিফের চিকিৎসা চলছে। তিনি ভাতিজার জন্য সবার কাছে দোয়া কামনা করেন।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন