বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

আজ সংগঠনটি সংবাদ বিজ্ঞপ্তি দিয়ে ধর্মঘট প্রত্যাহারের বিষয়টি সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছে। যোগাযোগ করলে সিলেট জেলা বাস মিনিবাস কোচ মাইক্রোবাস শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি হাজি ময়নুল ইসলাম ধর্মঘট প্রত্যাহার করার বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, ‘আমাদের দাবি পূরণের আশ্বাস পাওয়ায় ধর্মঘট প্রত্যাহার করা হয়েছে।’

গত শনিবার দুপুরে সিলেটের কদমতলী কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল এলাকায় মানববন্ধন করে সিলেটে সোমবার ধর্মঘটের ঘোষণা দেওয়া হয়েছিল। মানববন্ধন থেকে ছয়টি দাবি তুলে ধরে বলা হয়, গত ২৬ সেপ্টেম্বর ছয়টি দাবিসংবলিত একটি স্মারকলিপি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে দেওয়া হয়েছে। দাবি পূরণ না হওয়ায় তাঁরা ধর্মঘট আহ্বান করতে বাধ্য হয়েছেন। ধর্মঘটের আগের দিন রোববার স্থানীয সাংসদের আহ্বানে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত ধর্মঘট স্থগিত রাখা হয়েছিল।

সংগঠনটি সংবাদ বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জানায়, আজ দুপুরে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে সমঝোতা সভা হয়। সাংসদ হাবিবুর রহমান ও জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শফিকুর রহমান চৌধুরীর উপস্থিতিতে সভায় সভাপতিত্ব করেন সিলেটের জেলা প্রশাসক এম কাজী ইমদাদুল ইসলাম। সভায় বিআরটিএ সিলেটের সহকারী পরিচালক সানাউল হক, সিলেট জেলা বাস মিনিবাস কোচ মাইক্রোবাস শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি হাজি ময়নুল ইসলাম, কার্যকরী সভাপতি রনু মিয়া, সাধারণ সম্পাদক আবদুল মুহিমসহ ধর্মঘট আহবানকারী সংগঠনের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। সভায় ছয়টি দাবি নিয়ে আলোচনা হয়। একপর্যায়ে দাবি পূরণে স্থানীয় সাংসদকে অবহিত করে প্রশাসন সর্বাত্মক চেষ্টা করবে বলে আশ্বাস দেওয়ায় পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহারের ঘোষণা দেওয়া হয়।

একই দাবিতে সিএনজিচালিত অটোরিকশা চালক শ্রমিক সংগঠন ১ অক্টোবর ধর্মঘট আহ্বান করে আগের দিন প্রত্যাহার করেছিল।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন