বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্ত যুবক হলেন আবদুস সালাম ওরফে সামিউল (২৫)। তাঁর বাড়ি দিনাজপুরের হাকিমপুর উপজেলার মুহাড়াপাড়া গ্রামে। তিন বছর করে সশ্রম কারাদণ্ডপ্রাপ্ত দুজন হলেন আবদুস সালামের বাবা আমজাদ হোসেন (৫৫) ও তাঁর মা ছানোয়ারা বেগম (৪৫)।

আদালতসংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, ২০১৬ সালের ১১ এপ্রিল উপজেলার মুহাড়াপাড়া গ্রামের মামুনুর রশিদ আজাদের চার বছর বয়সী ছেলে আবতাহী আল রশিদকে অপহরণ করে মুঠোফোনে ৩০ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করেন আবদুস সালাম।

শিশুটির বাবা মামুনুর রশিদ বিষয়টি পুলিশকে জানান। পুলিশ প্রযুক্তির সহায়তায় আবদুস সালামকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তিনি শিশুটিকে অপহরণ ও হত্যার কথা স্বীকার করেন। আবদুস সালামের কথা অনুযায়ী, পরের দিন তাঁর বাসার ছাদ থেকে বস্তাবন্দী অবস্থায় আবতাহীর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় শিশুটির বাবা মামুনুর রশিদ হাকিমপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে হত্যা মামলা করেন। দেড় বছর পরে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেন। আদালত সাক্ষ্যপ্রমাণ শেষে এই আদেশ দিলেন।

রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন বাদীপক্ষের আইনজীবী তৈয়বা বেগম ও শিশুটির বাবা মামুনুর রশিদ আজাদ। তাঁরা জানিয়েছেন, সাক্ষ্যপ্রমাণের ভিত্তিতে হত্যাকাণ্ডের বিষয়টি প্রমাণিত হয়েছে। রায়ে তাঁরা সন্তুষ্ট। এই রায়ের ফলে অন্য কেউ এমন অপরাধ করতে সাহস পাবে না।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন