default-image

নওগাঁর ধামইরহাট উপজেলার পানিতে ডুবে দুই শিশুর মৃত্যু হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার আগ্রাদ্বিগুন ইউনিয়নের ডারকা দিঘি গ্রামে এ দুর্ঘটনা ঘটে। ওই দুই শিশু খেলার ছলে ড্রামে চড়ে ডারকা দিঘির পানিতে ভাসতে গিয়ে ড্রাম উল্টে ডুবে যায়।

মারা যাওয়া দুই শিশু হলো ডারকা দিঘি গ্রামের আরিফ হোসেনের ছেলে মাহফুজার রহমান (৯) এবং পার্শ্ববর্তী পত্নীতলা উপজেলার গগনপুর গ্রামের সাইফুল্লাহ শেখের ছেলে আলিফ শেখ (৯)। আলিফ শেখ ডারকা দিঘি গ্রামে তার নানার বাড়িতে বেড়াতে এসেছিল।

ড্রামে থাকা শিশুরা হুড়োহুড়ি শুরু করলে একপর্যায়ে ড্রামটি উল্টে গিয়ে ডুবে যায়। অন্য শিশুরা সাঁতরে দিঘির পাড়ে আসতে পারলেও মাহফুজার ও আলিফ পানিতে ডুবে যায়।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, ২০ একর আয়তনের বিশাল দিঘি ডারকা দিঘি। এই দিঘির নামেই গ্রামের নামকরণ হয়েছে। মাহফুজার ও আলিফ সকাল থেকে অন্য শিশুদের সঙ্গে এই দিঘির পাড়ে খেলা করছিল। একপর্যায়ে ওই দুই শিশু অন্য শিশুদের সঙ্গে খেলার ছলে দিঘিতে মাছের খাবার দেওয়ার জন্য ব্যবহৃত প্লাস্টিকের একটি বড় ড্রামে চড়ে পুকুরে ভাসতে যায়। তারা ড্রামে চড়ে ভাসতে ভাসতে দিঘির মাঝখানে চলে যায়। এ সময় ড্রামে থাকা শিশুরা হুড়োহুড়ি শুরু করলে একপর্যায়ে ড্রামটি উল্টে গিয়ে ডুবে যায়। অন্য শিশুরা সাঁতরে দিঘির পাড়ে আসতে পারলেও মাহফুজার ও আলিফ পানিতে ডুবে যায়। খবর পেয়ে স্বজন ও গ্রামের লোকজন শিশু দুটিকে ডুবে যাওয়ার ১৫-২০ মিনিট পর উদ্ধার করেন। তাদের উদ্ধার করে পত্নীতলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে চিকিৎসকেরা তাদের দুজনকেই মৃত ঘোষণা করেন।

এটা দুর্ঘটনা না হত্যা, তা তদন্ত করা হবে।
আবদুল মমিন, ওসি, ধামইরহাট থানা

ধামইরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবদুল মমিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, খবর পেয়ে পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এ ঘটনায় থানায় অপমৃত্যুর মামলা হবে। এটা দুর্ঘটনা না হত্যা, তা তদন্ত করা হবে।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন