default-image

নওগাঁ সদর উপজেলায় অরুণ সাহা (৫০) নামের এক কৃষকের গলাকাটা লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। আজ রোববার সকালে সদর উপজেলার শিকারপুর ইউনিয়নের হাঁসাইগাড়ী বিলের ধানখেত থেকে তাঁর লাশ উদ্ধার করা হয়। তিনি উপজেলার নামা হাতাশ গ্রামের বাসিন্দা।

স্থানীয় বাসিন্দা ও নওগাঁ সদর থানা-পুলিশ সূত্রে জানা যায়, অরুণ প্রতিবছর গ্রামের পাশে হাঁসাইগাড়ী বিলের মধ্যে খেতে উঠান তৈরি করে সেখানেই ধান মাড়াই করে থাকেন। পরে সেখান থেকে ধান বাড়িতে কিংবা বাজারে নিয়ে গিয়ে বিক্রি করে থাকেন। এবারও তিনি উঠান তৈরি করে সেখানে ধান মাড়াইয়ের ব্যবস্থা করেছিলেন। গতকাল শনিবার দিনভর শ্রমিকেরা অরুণের খেতের ধান কেটে উঠানে তা মাড়াই করেন। রাত হয়ে যাওয়ায় ধানগুলো বাড়িতে আনতে না পারায় সেখানেই স্তূপ করে রেখে দেওয়া হয়। গতকাল অরুণ বাড়িতে রাতের খাবার খেয়ে উঠানে রাখা ধান পাহারা দিতে চলে যান। আজ সকালে বিলে কাজ করতে গিয়ে স্থানীয় লোকজন একটি ধানখেতের মধ্যে অরুণের লাশ দেখতে পান। খবর পেয়ে নওগাঁ সদর থানা–পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

নওগাঁ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নজরুল ইসলাম বলেন, ধারালো অস্ত্র দিয়ে গলা কেটে অরুণকে হত্যা করা হয়েছে। সকালে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নওগাঁ সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। কী কারণে কে বা কারা তাঁকে হত্যা করেছে, তা তদন্ত করে খুঁজে বের করার চেষ্টা করা হচ্ছে। এ ঘটনায় থানায় একটি মামলার প্রস্তুতি চলছে।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন