বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

নিহত ব্যক্তির স্বজন ও কারখানা সূত্রে জানা গেছে, ওই কারখানায় প্লাস্টিকের বোতল তৈরির একটি নতুন মেশিন এক সপ্তাহ আগে স্থাপন করা হয়। গতকাল বিকেলে মেশিনটি উৎপাদনে যাওয়ার জন্য উদ্বোধন করা হয়। উদ্বোধনের তিন ঘণ্টা পর ওই মেশিনে প্লাস্টিকের বোতল তৈরির সময় এ দুর্ঘটনা ঘটে। মোশাররফ তখন বোতল তৈরির কার্যক্রম পর্যবেক্ষণ করছিলেন। তাঁর মাথা ওই মেশিনে লেগে গেলে এ দুর্ঘটনা ঘটে। তিনি কারখানার ফ্লোরে লুটিয়ে পড়েন। পরে উপস্থিত শ্রমিক-কর্মকর্তারা তাঁকে উদ্ধার করে কারখানার গাড়ি দিয়ে গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজে নিয়ে যান। রাত আটটার দিকে হাসপাতালটির চিকিৎসক তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন।

কারখানার জিএম আশরাফুল আলম বলেন, প্লাস্টিকের বোতল তৈরির নতুন মেশিন উদ্বোধন করার তিন ঘণ্টা পর এ দুর্ঘটনা ঘটে।

পলাশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ইলিয়াছ বলেন, ‘কারখানার সিসি ক্যামেরার ফুটেজ সংগ্রহ করে দেখা গেছে, দুর্ঘটনায় মোশাররফ হোসেনের মৃত্যু হয়েছে। এই ঘটনায় তাঁর পরিবারের পক্ষ থেকে কোনো লিখিত অভিযোগ আমরা পাইনি। লিখিত অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন