বিজ্ঞাপন

নরসিংদী সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগে কর্তব্যরত চিকিৎসক রোজী সরকার বলেন, ‘গুলিবিদ্ধ দুজন ব্যক্তিকে আমরা চিকিৎসা দিয়েছি। তাঁদের একজনের শরীরে পাঁচটি ছিটাগুলি ও একটি বুলেট পাওয়া গেছে। আমরা তাঁদের ভর্তি রেখে চিকিৎসা দিচ্ছি।’

এ বিষয়ে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদ আলী ও ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আইয়ুব আলীর বক্তব্য জানতে তাঁদের মুঠোফোনে একাধিকবার কল দেন এই প্রতিবেদক। প্রতিবারই তাঁদের মুঠোফোন বন্ধ পাওয়া যায়।

নরসিংদী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বিপ্লব কুমার দত্ত চৌধুরী বলেন, আধিপত্য বিস্তার ও পূর্বশত্রুতার জেরে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। বেশ কয়েকজন গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনেছে। অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতি মোকাবিলায় ওই এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন